২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
বরিশালে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত ৩ রাঙাবালীতে ইয়াবাসহ আটক-১ ঝালকাঠিতে স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে আমতলীতে গরমে মাথা ঘুরে পড়ে গিয়ে নারীর মৃত্যু বরিশালে পুনর্বাসন ছাড়া হকার উচ্ছেদ বন্ধের দাবি রাজাপুরে শিক্ষার্থীদের অনুদানের বরাদ্দ ৫ হাজার, কিন্তু পেয়েছে ৩ হাজার! বরিশালে দরিদ্র মানুষের সংখ্যা বেশি থাকায় বেড়েছে শিশু শ্রমের হার নারী ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে প্রবাসীর স্ত্রীকে মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দেয়ার অভিযোগ সিরাজগঞ্জে উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থীদের মাঝে প্রতিক বরাদ্দ প্রদান ৫ হাজার টাকা বরাদ্দ শিক্ষার্থীরা পেল ৩ হাজার রাজাপুরের সোনারগাঁও স্কুলের সভাপতি ও প্রধান শিক্ষকের বি...

অপরাধ সংশোধন ও পুনর্বাসন সমিতির সদস্য হলেন সমাজ সেবক ইকবাল মাল

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

ইয়াছিনুল ঈমন, ভোলা প্রতিনিধি।

অপরাধ সংশোধন ও পুনর্বাসন সমিতি, ভোলা এর সদস্য হলেন গ্রামীণ মানব কল্যাণ সংস্থার চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইকবাল মাল।
ইকবাল মাল বলেন আমার সমাজসেবামূলক গ্রামীণ মানব কল্যাণ সংস্থার মাধ্যমে আমি সমাজের অসহায়দের সাহায্য করে থাকি বিভিন্ন সামাজিক কার্যক্রম গ্রহণ করি বনায়ন কর্মসূচি করি বিভিন্ন শিক্ষামূলক কর্মসূচি করে থাকি। আমার সকল কর্মসূচি স্বেচ্ছাসেবী মূলক এবং বিনামূল্যে প্রদান করা হয়।
গ্রামীণ মানব কল্যাণ সংস্থার চেয়ারম্যান এবং অপরাধ সংশোধন ও পুনর্বাসন সমিতি ভোলা এর সদস্য ইকবাল মাল আরো বলেন আমার সামাজিক ও মানবিক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে আমি অপরাধ সংশোধন ও পুনর্বাসন সমিতির সদস্য হতে ইচ্ছুক হয়েছিলাম। তারই ধারাবাহিকতায় আমাকে সমিতির সদস্য করা হয়েছে । অপরাধ একটি সামাজিক ব্যাধি। এটা সমাজ ও আইনের চোখে অন্যায়। তাই উন্নত দেশসমূহে অপরাধীদের বিচার করে তাদের শাস্তি প্রদানের পাশাপাশি প্রবেশনের মাধ্যমে সেোশাধনের বিধান রয়েছে। অনেক ক্ষেত্রে শাস্তি অপরাধ প্রতিরোধে সহায়ক না হয়ে অপরাধ বিস্তারে সহায়ক হয়। শাস্তি নয়, সংশোধনই এ কার্যক্রমের মূল লক্ষ্য। তাই আধুনিক চিন্তাবিদ ও সমাজবিজ্ঞানীগণ অপরাধীদের শাস্তির পরিবর্তে গঠনমূলক সংশোধনীর পক্ষে মত প্রকাশ করেন। এ ধ্যান ধারনার উপর ভিত্তি করেই প্রবেশন কার্যক্রমের উৎপত্তি হয়েছে। যারা প্রথম বারের মত অপরাধ করে এবং যাদের লঘুদন্ডে দন্ডিত করা হয়, সে সকল অপরাধীর শাস্তি স্থগিত রেখে প্রবেশন কর্মকর্তার আওতায় এনে তাদের চরিত্র সংশোধনের মাধ্যমে সমাজে প্রতিষ্ঠিত করা হয়ে থাকে। এছাড়া বিচারাধীন আসামী যারা আইনী সহায়তা গ্রহণে অক্ষম তাদের আইনী সহায়তা প্রদান, নিরাপদ হেফাজতীদের নিরাপত্তাসহ সকল প্রকার সহায়তা প্রদান, সাজা প্রাপ্ত জেল কয়েদীদের শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ শেষে সমাজে পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করাই এ সমিতির মূল লক্ষ্য।

সর্বশেষ