১৬ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

আমতলীতে চাঁদার দাবীতে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা ভাংচুর আহত – ৫

হারুন অর রশিদ, আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি।
বরগুনার আমতলীতে চাঁদার দাবীতে উপজেলার কল্যাপুর (কলংক) বাস স্ট্যান্ডের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়ে মারধোর, ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে ৫ জন আহত হয়েছে। আহতদের আমতলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার ছোট নিলগঞ্জ গ্রামের মোঃ জাকির হোসেন কাজী কল্যানপুর (কলংক) বাস স্ট্যান্ডে ডেকোরেটরের ব্যবসা করেন। একই এলাকার একাধিক মামলার আসামী আজিজ সরদার ও রহিম সরদার জাকির হোসেন কাজীর কাছে ২ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবী করেন। ব্যবসায়ী জাকির কাজী ওই দাবীকৃত চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করায় গতকাল (বৃহস্পতিবার) রাতে রহিম সরদার ও তার লোকজন জাকির কাজীর ওই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালায়। এতে উভয় পক্ষের ৫ জন আহত হয়। আহতরা হলেন জাকির কাজী (৪৫), খাদিজা (৪০), হাসান (২৫), নজরুল কাজী (৫০) ও মাহতাব (২০)।

স্বজনরা আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করেন। সংবাদ পেয়ে আমতলী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

ডেকোরেটর ব্যবসায়ী আহত জাকির হোসেন কাজী বলেন, রহিম সরদার আমার কাছে ২ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবী করেন। আমি দাবীকৃত ওই চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় রহিম সরদার, আজিজ সরদার, মোতালেব, মাহাতাব, নুরকামাল, পারভেজ, হেলাল ও নুরজামাল আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও লুটপাট করে। আমি ও আমাদের লোকজন এতে বাঁধা দিলে তারা আমাকে ও আমাদের লোকজনকে মারধোর করেছে। আমি ঘটনার বিচার দাবী করছি।

অভিযুক্ত রহিম সরদার মারধোরের কথা স্বীকার করলেও লুটপাটের কথা অস্বীকার করেন।

আমতলী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ শাহআলম হাওলাদার মুঠোফোনে বলেন, এ ঘটনায় কোন লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ