৯ই জুন, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালীতে স্বামী স্ত্রীকে পিটিয়ে জখম।। বৃহস্পতিবার মাধ্যমিক পর্যায়ের সব বিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা বরিশাল সিটিতে নৌকা বিজয়ের লক্ষে ১৪ দলের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত এক যুগ পর মঠবাড়িয়া পৌর নির্বাচন : কে হবেন নৌকার মাঝি! ১০টি স্মার্ট ফোন উদ্ধার করেছে ভোলা গোয়েন্দা পুলিশ পবিপ্রবিতে এনবিএ-র নতুন কমিটি গঠন বরিশাল সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন : নৌকার সমর্থেন বানারীপাড়া আ.লীগ নেতৃবৃন্দের গণসংযোগ আমি সর্বাত্তকভাবে চেষ্টা করবো নগরবাসীর প্রয়োজনে কাজ করার : খোকন সেরনিয়াবাত ভোলার গ্যাস বরিশালে আনাসহ ১৭ দফা ইশতেহার হাতপাখার প্রার্থীর পটুয়াখালীতে বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও করল বিএনপি

আমতলীতে সড়ক দূর্ঘটনায় অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূ নিহত

হারুন অর রশিদ, আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি।
বরগুনার আমতলী- পটুয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের শাখারিয়া বাসষ্ট্যান্ডে দাড়িয়ে থাকা একটি যাত্রীবাহী বাসকে পিছন থেকে আর একটি যাত্রীবাহী বাস ধাক্কা দিলে ইঞ্জিনবক্সে বসে থাকা যাত্রী ৬ মাসের অন্তঃসত্ত্বা রেহেনা (২৭) বাস থেকে ছিটকে সড়কে পড়ে নিহত হয়েছে। এতে ২ শিশুসহ আরো ৪ জন যাত্রী আহত হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানাগেছে, মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আমতলী থেকে পটুয়াখালীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী বাস মেহেলী পরিবহন (ঢাকা মেট্রো ব-১১-০১-০৮) সকাল ১০ টায় শাখারিয়া বাসষ্ট্যান্ডে পৌছে যাত্রী উঠা নামানোর জন্য দাড়ায়। এসময় পার্শ্ববর্তী গলাচিপা থেকে ছেড়ে আসা অপর আর একটি যাত্রীবাহী বাস নিশাত পরিবহন ঘটনাস্থলে এসে থামানো গাড়ীটিকে পিছন থেকে সজোরে ধাক্কা দেয়। সে সময় মেহেলী পরিবহনের ইঞ্জিনবক্সে বসে থাকা যাত্রী ৪ মাসের অন্তঃসত্ত্বা রেহেনা তার শিশু কন্যা রিয়া মনিকে নিয়ে বাস থেকে ছিটকে গেট দিয়ে সড়কে পড়ে বাসের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই সে নিহত হয়। নিহত যাত্রী রেহেনা বেগম উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নের কালীবাড়ী গ্রামের আফজাল বেপারীর স্ত্রী। সে ডাক্তার দেখাতে পটুয়াখালী যাচ্ছিল। এতে আহত হয়েছে নিহতের শিশু কন্যা রিয়া মনি (৩), অপর যাত্রী নূরজাহান বেগম (৫২), পিয়ারা বেগম (৫০) ও তার নাতি শিশু খাদিজা (৫)। এদের মধ্যে শিশু রিয়া মনির অবস্থা গুরুত্বর।

সংবাদ পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে এবং আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করেন। এ ঘটনায় আমতলী থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে।

নিহত গৃহবধূর স্বামী আফজাল বেপারী কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, ডাক্তার দেখানোর জন্য পটুয়াখালী যাওয়ার জন্য আজ সকালে আমি আমার স্ত্রী ও কণ্যাকে গাড়ীতে উঠিয়ে দিয়েছি। এখন আমি আমার স্ত্রীর লাশ পেলাম। আমার আদরের একমাত্র কন্যাও গুরুত্বর অসুস্থ্য। ঘাতক বাস আমার সব শেষ করে দিলো। আমি এর বিচার চাই।

আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ শাহআলম হাওলাদার বলেন, সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে এসেছি। আহত দুই শিশুসহ অন্যান্যদের চিকিৎসার ব্যবস্থা করেছি। ঘাতক যাত্রীবাহী বাসটির চালক হেলপার বাসটি নিয়ে পালিয়ে গেছে। তাদের আটক করার চেষ্টা অব্যাহত আছে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ