৭ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
আমতলী থানার ওসি একেএম মিজানুর রহমান জেলার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত গলাচিপায় এ্যাম্বুলেন্স সেবায় চলছে রমরমা ব্যবসা। ৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর চরকাউয়া থেকে বাস চলাচল শুরু পটুয়াখালী জেলা পরিষদের আয়োজনে বীর মুক্তিযোদ্ধা, আগুনে ক্ষতিগ্রস্থ ও ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে চেক প্রদান আমতলী পৌরসভায় ৪৬২১ জন হতদরিদ্রদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার স্ত্রী-বোনের টাকায় ট্রাক্টর কিনলেন পলাশ গলাচিপায় ঐতিহ্যবাহী গ্রামীন শিল্প হোগল পাতা বিলুপ্তির পথে ব্যবসায়ী নাজমুল সাদাতের পিতার জানাজা সম্পন্ন ব্যবসায়ী নাজমুল সাদাতের পিতার জানাজা সম্পন্ন মাহাফুজুর রহমানের "স্বপ্নে দেখা সেই মেয়েটি" লাজুক

ইন্দুরকানীতে ইউএনও’র সামনে যুবলীগ নেতার উপর হামলা

পিরোজপুর প্রতিনিধি :: পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে ইউএনওর উপস্থিতিতে যুবলীগ নেতার উপর হামলা। রোববার সকালে ইউএনও অফিসের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, নবাগত যোগদানকারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুৎফুন্নেসা খানমের সাথে ইন্দুরকানী উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি ও বালিপাড়া ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ নাসির উদ্দিন সেপাই দেখা করতে আসলে সাবেক উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও আওয়ামীলীগের নেতা মোঃ নুরুজ্জামান খানের ছেলে যুবলীগ নেতা নবীন অতর্কিত ভাবে নাসির উদ্দিন সেপাইর উপর হামলা চালায় । হামলায় বেপোরোয়া ভাবে মাথায় আঘাত করলে সে গুরুত্বর আহত হয়। খবর পেয়ে ইন্দুরকানী থানা পুলিশ ও আনসার সদস্যরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।

নবীনের পিতা মোঃ নুরুজ্জামান খান জানান, আমার ছেলে মোটরসাইকেলে উপজেলা পরিষদের সামনে আসলে নাসির সেপাইয়ের সাথে কথা কাটাকাটি হয়। তখন নবীনকে নাসির সেপাই চর থাপ্পর মারে। এতে নবীন ক্ষিপ্ত হয়ে নাসির সেপাইর উপর হামলা করেন ।

হামলায় স্বীকার উপজেলা যুবলীগের সহ সভাপতি নাসির সেপাই জানান, পূর্বপরিকল্পিত ভাবে ইউএনও সামনে নবীন আমার উপর হামলায় চালায় । তাতে আমি গুরুত্বর আহত হই।

বিষয়টি স্বীকার করে উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুৎফুন্নেসা খানম জানান, মারামারি ঘটনার পরে উভয়ের মধ্যে আমার কার্যালয়ে বসে মিমাংসা হয়েছে ।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ