১৯শে আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

উজিরপুরে ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে ধর্ষনের অভিযোগে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥
উজিরপুর উপজেলার গুঠিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহামুদুন্নবী আরিফ (২৮) এর বিরুদ্ধে ধর্ষণ অভিযোগে আদালতে মামলা দায়ের হয়েছে। আরিফ গুঠিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাজু‘র আপন চাচাতো ভাই। মামলা সূত্রে জানাযায়, আরিফ গুঠিয়া ইউনিয়নের ডহরপাড়া গ্রামের এক তরুনীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে একাধীকবার ধর্ষন করে। এমনকি সাদা কাগজে তরুনীর স্বাক্ষর নিয়ে তাকে বিয়ে করেছে বলে জানায়। ওই তরুণী আরিফের নিকট বারবার বিয়ের প্রমাণপত্র দেখতে চাইলেও কোন প্রকার কাগজ দেখায়নি আরিফ। দীর্ঘদিন শারিরিক মিলনের ফলে তরুনী অন্তসত্বা হলে আরিফ নানা তাল বাহানায় তরুনীর গর্ভপাত ঘটায়। এই ব্যাপারে ওই তরুনী এলাকার ও রাজনৈতিক বিভিন্ন মহলের নিকট বিচার না পেয়ে আদালতের দ্বারস্থ্য হয়েছে।
আরিফ ক্ষমতাশীন দলের ছাত্র রাজনীতির সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত হওয়ায় স্থানীয় অনেক আ’লীগ নেত তাকে বাচাতে মরিয়া হয়ে উঠেছে। ওই তরুনীর পরিবার হতে জানাযায়, মামলা তুলে নিতে বারবার তরুনীর পরিবারকে চাপ সৃষ্ঠি করা হচ্ছে। একাধীক ব্যক্তি জানান, ক্ষতিগ্রস্থ্য তরুনীর পিতা না থাকায় অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়েছে ইভটেজার হিসেবে পরিচিত আরিফ।
এব্যাপারে,‘ গুঠিয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাজু আহম্মেদ বলেন,‘আরিফ আমার চাচাতো ভাই। তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।”
ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান বলেন,‘‘ আরিফ আমার কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, তার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা হয়েছে শুনেছি, থানা নেতৃবৃন্দের সাথে আলাপ করে সাংঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে।’
গুঠিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম মিন্টু বলেন,‘‘ মামলা হয়েছে শুনেছি, আইনীভাবে প্রকৃত অপরাধী শাস্তি পাক। অপরাধীর কোন দল নেই।”

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ