১৯শে আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

একজন জ্ঞান তাপসের কথা বলছি

মোঃহাবিবুর রহমান বিস্বাস।

হে জ্ঞান তাপস!
তোমার ভালোবাসা আমাকে করেছে পরাজিত,
তোমার অবারিত হৃদয় বিহার করেছি
সীমানা পাইনি,
কতদূর বিস্তৃত।
তোমার হৃদয় আকাশে ঘুরে বেরিয়েছ
সীমানা পাইনি,
পাইনি পাণ্ডিত্যের বিচরন ক্ষেত্র।
কোন মহামনিসির ছাত্র ছিলে বলো?
কোন মহাকাব্য পড়ে হতে পেরেছ উজ্জ্বল নক্ষত্র?
আমি হেরে গিয়েছি, বোকা বনেছি
তোমার ফেনা রাসির একটি বুদ্বুদ ওনহি,
কোন সাহসে হাটি তোমার পিছু পিছু?
কখনো করোনা অপদস্থ।
কেবলই দিয়েছ উতসাহ।
অনিমিলিত আঁখি আমার
এমন করে আর কেউ দেখছে কিনা তাতো জানিনে।
তোমার ভেতরের সুধা মেটাতে পারেনি খুধা
আরোও পেতে চায়
তৃষ্নার্ত হৃদয়
কোন দিন কি মিটিবে এ অতৃপ্তি?
তোমাকে দেখেছি বাতাসের সাথে মেলেছ ডানা,
তোমাকে দেখেছি সাগরের ঢেউয়ের মাথায় চড়ে
মহাসাগর পাড়ি দিতে হয়ে উতালা
বের করো নতুন নতুন ঠিকানা ।
পথ করে দাও নবীনদের
একে দেখাও নতুন আলপনা।

হে মহাপন্ডিত!কোন গন্ডিতে থামিবে?
নিজেও হয়তো বুঝতে পারোনা।
বাহবা দিয়ে ধ্বংস করবোনা,অবুঝ আমি
বিচার করার শক্তি নেই,
কেবলই পরীক্খা,কেবলই নীরিক্ষা
অদম্য উল্কা
মেঘমালার বিজলী যেন
চমকে দাও বিশ্ব,
গর্জনে যেন দমকা হাওয়া,
জানিনে, এলেখায় হয়তো হয়নি শেষ কথা বলা,
তুমিই তোমার উপমা
বেছে নিয়েছ শুধু পথ চলা।
এখন নাজানুক এখন না বুঝুক
বুঝবে একদিন
কি উদ্দেশ্য ছিলো তোমার যাত্রা পালা।
আমি জানি,
একটি মরাগাছে উৎসাহের পানি সিন্চিয়ে
কিভাবে ফোটাও ফুল,
কান্নার পানি মুছে দিয়ে
কালি কলম দিয়েছ হাতে তুলি
একজন মহাজ্ঞানী র আদল।
তুমি শিক্ষকের শিক্ষক,
মহা অধীক্খক
কখনো দাওনা প্রবঞ্চনা ।।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ