২৩শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম

কাউখালীতে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ আহত ৯; গ্রেফতার ৫

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুরের কাউখালীতে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে ৯ জন আহত সহ ৫ জন গ্রেফতার করা হয়েছে।ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার (২৬ নভেম্বর)সকালে উপজেলার সয়না রঘুনাথপুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের রঘুনাপুর গ্রামের বেল্লাল খানের বাড়ির সামনে।
জানা গেছে, ওই ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থী আশিষ মজুমদার (মোরগ মার্কা)ও শংকর দাসের (তালা মার্কা) সমর্থকদের মধ্যে ওই সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় আশিষ কুমার মজুমদারের কর্মী প্রভাষ মজুমদার (৪২), দুলাল শেখ (৩০), তানভীর হাওলাদার (১৮) , সোহেল শেখ (২৫) ও শংকর দাসের কর্মী আ: জলিল মোল্লা (৫২)
কে আটক করেছেন পুলিশ।মেম্বার প্রার্থী শংকর দাস জানান, তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী আশিষ মজুমদার নির্বাচনী প্রচারনার শুরু থেকে তাকে (শংকর) বিভিন্ন ভাবে হুমকী সহ প্রচারনায় বাঁধা দিয়ে আসছে। এ বিষয়ে আমি থানা সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তাকে একাধীকবার লিখিত ভাবে জানিয়েছি।এমন কি গত বুধবার (২৪ নভেম্বর) রাতে স্থানীয় ফনি ভুষন দাসের বাড়িতে একটি ধর্মীয় অনুষ্ঠানে বসে আমার উপর হামলা চালায়। এরই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার(২৬ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে প্রচারনায় বের হয়ে ওই ওয়ার্ডের বেল্লাল খানের বাড়ির কাছে পৌঁছলে প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী আশিষ কুমার মজুমদারের নেতৃত্বে হামলা চালানো হয়। এ সময় হামলায় আমি (শংকর) সহ আমার কর্মী মহিবুল্লাহ শেখ (২০), তানিয়া বেগম (৩০), ফাইজুল হক শিমুল (২৪) কে পিটিয়ে ও কুপিয়ে আহত করে।এমন অভিযোগ অস্বীকার করে মোরগ মার্কার প্রার্থী আশিষ মজুমদার জানান, ঘটনার সময় আমি (আশিষ) কাউখালী উপজেলা সদরে ছিলাম। মেম্বার প্রার্থী শংকর দাস এর কর্মী তানিয়া বেগম আমার কর্মী মনির হাওলাদারকে অকারনে জুতা পেটা করে। এ নিয়ে সংঘর্ষ বাঁধে। এত হামালায় আমার কর্মী আলী শেখ (৩৭), হেলাল খান (৩২), দলু মোল্লা (২৫), কালাম মাঝি (২৮) ও মনির হাওলাদার আহত হন।
কাউখালী থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) মো. বনি আমিন জানান, সেখানে দুই মেম্বার প্রার্থীর মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এ ঘটনায় ৫ জনকে আটক করা হয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ