১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
বরিশালে বাস-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে ২ কিশোর নিহত পটুয়াখালীতে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে ঢুকে ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ অধ্যক্ষ নজরুল ইসলামের ২৯তম মৃত্যুবার্ষিকীতে এসটিএস হাসপাতালের ২ দিন ব্যাপী ফ্রী মেডিকেল ক্যাম্প করোনায় আরও ৩৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১ হাজার ৯০৭ ভোলায় মহানবী (সা.)-কে নিয়ে কটূক্তি, পূজা পরিষদের সভাপতি আটক ইন্দুরকানীতে নয় বছরেও সেতুতে নেই ল্যাম্পপোষ্ট, পথচারীদের ভোগান্তি পটুয়াখালীর চার সেতুতে লাইট পোস্টে আলো নেই মেহেন্দিগঞ্জে নৌ-পুলিশের অভিযানে কোটি টাকার অবৈধ কারেন্ট জাল উদ্ধার অধ্যক্ষ নজরুল ইসলামের কবরে চরফ্যাসন প্রেসক্লাবের শ্রদ্ধাঞ্জলি চরফ্যাশনে ইউনিয়ন সংরক্ষণ কমিটি গঠনে পরামর্শ সভা

কাউখালীর সদর ইউপি নির্বাচনের ফলাফল বাতিলের আবেদন

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুরের কাউখালী উপজেলার সদর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের ফলাফল বাতিলসহ গেজেট প্রকাশ না করার আবেদন জানিয়েছেন নির্বাচনে পরাজিত নৌকা প্রতিকের প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান আমিনুর রশীদ মিল্টন। বুধবার (৩০ জুন) প্রধান নির্বাচন
কমিশনার,সচিব,জেলা ও উপজেলা নির্বাচন অফিসারসহ যথাযথ কর্তৃপক্ষের বরাবর ডাকযোগে লিখিতভাবে আপত্তিপত্র পাঠিয়েছেন মিল্টন।
ওই আবেদনে আমিনুর রশীদ মিল্টন বলেন, ২১ জুন অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৩ নং সদর ইউনিয়নে তথ্য গোপন করে চশমা প্রতিক নিয়ে মোস্তাফিজুর রহমান নির্বাচনে অংশ গ্রাহন করেন ।তিনি তার আবেদনে বলেন, ইউনিয়ন পরিষদ আইন ২০০৯ এর বিধানমতে কোন সরকারি তালিকা ভুক্ত ঠিকাদার নির্বাচনে অংশগ্রহন করতে পারবেনা।তাকে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে হলে মনোনয়ন পত্র দাখিলের আগে তার ঠিকাদারির লাইসেন্সের স্বত্তাধিকারী থেকে অব্যাহতি দিতে হবে।কিন্তু মোস্তাফিজুর রহমান তা না করে তিনি তথ্য গোপন করে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন।উক্ত মোস্তাফিজ গত ৬ জুন ২০২০-২১ অর্থ বছরের এডিপির প্রজেক্টের অধীন কাউখালী সদর ইউনিয়নের মতুয়া আশ্রমের সামনে গভীর নলকূপ স্হাপনের ওয়ার্ক অডার পান।সেই নলকূপটি স্হাপনের শেষ সময় ছিল ৩০ জুন ২১। এছাড়াও তিনি জেলা পরিষদেরও এক জন তালিকা ভুক্ত ঠিকাদার। মোস্তাফিজ তার ঠিকাদারির তথ্য গোপন করে ইউপি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।সে তার ব্যক্তিগত তথ্য গোপন করে সুস্পষ্টভাবে নির্বাচনী আইনের বিধান লংঘন করে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন। মিল্টন তাই ২১ জুনের কাউখালী সদর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন বাতিলপূর্বক উক্ত নির্বাচনের গেজেট প্রকাশ না করে পুনঃনির্বাচনের জন্য আবেদন করেন।

এ বিষয়ে ইউপি নির্বাচনের রির্টানিং অফিসার ও উপজেলা নির্বাচন অফিসার মিজানুর রহমান বলেন, আমি কোন প্রার্থীর নির্বাচনে ফলাফল বাতিলের আবেদন পাইনি।
তিনি বলেন,সদর ইউপি নির্বাচন সুষ্টভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। তাই ‘প্রথমত নির্বাচন বাতিলের জন্য কোনো প্রার্থী আবেদন করতেই পারেন না। বড়জোর ফল পুনরায় গণনার ব্যাপারে আবেদন করতে পারেন। এরপরও কোন প্রার্থী নির্বাচন বাতিলের আবেদন করলে, তা আপিল বিভাগের কর্মকর্তা যারা আছেন, তাঁরাই সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ