১৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম

ঝালকাঠিতে মাদক বিক্রির প্রতিবাদ করায় যুবকের চোখ উৎপাটনের চেষ্টা, আহত ৩

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

নিজস্ব প্রতিবেদক :: ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার পরমপাশা এলাকায় মাদক বিক্রির প্রতিবাদ করায় সুজন সর্দার নামে এক যুবককে চোখ উৎপাটনের চেষ্টাসহ ৩ জনকে জখম করার অভিযোগ পাওয়া গেছে মাদকসেবী সোহাগ সরদার ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে। গতকাল রোববার রাত ৯ টায় পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের তারা মার্কেট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত সুজন ওই এলাকার সালাম সরদারের ছেলে এছাড়া অন্যরা হল সুজনের ছোট ভাই জসিম সরদার ও বোন আখি বেগম।

বর্তমানে তারা গুরুতর অবস্থায় বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

আহত সুজনের বাবা সালাম সরদার জানান, দীর্ঘদিন ধরে পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ড তারা মার্কেট এলাকায় মাদবপাশার সত্তার সরদারের ছেলে সোহাগ ও তার সহযোগীরা মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছে। তারা মার্কেট এলাকায় সোহাগ ও তার সহযোগীরা একটি মাদকের চক্র বানিয়ে যুব সমাজের মাঝে মাদক সরবরাহ করে।

 

বিষয়টি নিয়ে সালাম সরদারের ছেলে সুজন প্রতিবাদ করলে সোহাগ ও তার সহযোগীরা ক্ষিপ্ত হয়ে যায়। একপর্যায়ে তারা সুজন ও তার পরিবারকে বিভিন্ন ভয়-ভীতি সহ খুন জখমের হুমকি দেয়। বিষয়টি নিয়ে সুজনের বাবা সালাম সরদার স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ প্রশাসককে জানালে সোহাগ আরো ক্ষিপ্ত হয়ে যায়। এরই জের ধরে ঘটনার দিন তারা মার্কেট এলাকায় সোহাগ ও তার সহযোগী শাহিন, টিটু, খোকন, রেজাউল, মিরাজ, রাকিব,সহ অজ্ঞাতনামা কয়েকজন সুজন কে চোখ উৎপাদনের চেষ্টা করে। এ সময় সুজনের ভাই জসিম ও বোন আখি বেগম আসলে তাদেরকেও কুপিয়ে-পিটিয়ে আহত করে সোহাগসহ অন্যান্য সহযোগীরা। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে তাৎক্ষণিক নলছিটিতে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। এদের মধ্যে সুজন সর্দার অবস্থা আশঙ্কাজনক। সুজন বর্তমানে হাসপাতালের চক্ষু বিভাগে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

চক্ষু বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, সুজনের ডান চোখে খুরের আঘাতে মারাত্মক জখম রয়েছে। তবে সুস্থ হতে সময় লাগবে।

এ ঘটনায় নলছিটি থানার অফিসার ইনচার্জ আতিয়ার রহমান জানান- অভিযোগ দেওয়া হলে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সর্বশেষ