২৩শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

দশমিনায় মোটরসাইকেল মার্কার কর্মীকে পেটালো প্রতিপক্ষ

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

পটুয়াখালী প্রতিনিধ ::: পটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী শাখাওয়াত হোসেনের ঘোড়া মার্কার সমর্থন না করায় মোটরসাইকেল মার্কার সমর্থক মো. কাজী হামিদুল (১৬) নামে এক যুবককে মারধরের অভিযোগ উঠেছে।

শুক্রবার (১৭ মে) রাত এগারোটায় উপজেলার বাঁশবাড়িয়া ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের গছানি বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত কাজী হামিদুল বর্তমানে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে।

মারধরের শিকার মোটরসাইকেল মার্কার কর্মী কাজী হামিদুল জানান, গছানি বাজার থেকে বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্য রওনা দিলে ঘোড়া মার্কার সমর্থক মিহাদ, আবির, রবিউল, আব্দুল্লাহ, সিয়াম, সাইফুলসহ ৮-১০ জন তাকে বলে সে মোটরসাইকেল মার্কার হয়ে মাঠে কাজ করতে পারবে না। ঘোড়ার সঙ্গে কাজ করতে বলে তারা। তখন ওদের কথায় হামিদুল রাজি না হওয়ায় প্রথমে রবিউল তার পিছন থেকে ইট দিয়ে মাথায় আঘাত করে। পরে সবাই মিলে মারধর শুরু করে। এক পর্যায়ে হামিদুলের চিৎকারে এলাকার লোকজন এগিয়ে আসলে ওরা পালিয়ে যায়। সেখান থেকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে তাকে।

এদিকে ঘোড়া মার্কার চেয়ারম্যান প্রার্থী শাখাওয়াত হোসেন বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। বাঁশবাড়িয়া আমার নিজের এলাকা। এখানে আমাদের ঐক্য ভাঙার জন্য ষড়যন্ত্রকারীরা প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

মোটরসাইকেল মার্কার চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. বশির উদ্দিন জানান, কাজী হামিদুলের অপরাধ সে মোটরসাইকেল মার্কার কর্মী। বেশ কিছুদিন ধরে ঘোড়া মার্কার সমর্থকরা হামিদুলকে হুমকি দিয়ে আসছিলো। কিন্তুু ওইদিন রাতে সরাসরি হামলা করে।

দশমিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুরুল ইসলাম মজুমদার জানান, খবর পেয়ে হাসপাতালে পুলিশকে পাঠানো হয়েছে। লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

সর্বশেষ