১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
নলছিটিতে কৃষককে মারধরের অভিযোগ বরিশাল বাণী’র উপ-সম্পাদক হলেন জুবাইয়া বিন্তে কবির প্রশাসনের নীরব ভূমিকা সড়কের ওপর বাজার, দীর্ঘ যানজটে মানুষের ভোগান্তি ভোলায় মহাসড়কে আওয়ামী লীগ নেতার গরুর হাট লালমোহনে মোবাইলে ডেকে বাড়িতে নিয়ে কিশোরীকে গণধ*র্ষ*ণ করল প্রেমিক ও তার বন্ধু ঈদ যাত্রা নিরাপদ করতে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে-- সচিব এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরী একজন মানবিক পুলিশ কর্মকর্তা মোঃ মাসুদ রানা লায়ন মো: গনি মিয়া বাবুল বঙ্গবন্ধুর আদর্শের জাগ্রতপ্রাণ আগামীকাল বরিশালে আসছেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম এমপি ভোলায় অতিরিক্ত যাত্রী বহন: ২ লঞ্চ ও ইজারাদারকে জরিমানা

নাজিরপুরে ইউনিয়ন আ’লীগের কমিটি গঠন নিয়ে অগ্নি সংযোগ ও ভাংচুর, দু’গ্রুপের আহত শতাধীক

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

পিরোজপুর প্রতিনিধি: পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলার শাঁখারীকাঠী ইউনিয়ন আ’লীগের কমিটি গঠন নিয়ে অগ্নি সংযোগ সহ পাল্টা-পাল্টি হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে আ’লীগের দু’গ্রæপের কমপক্ষে শতাধীক নেতা-কর্মী আহত হয়েছে বলে উভয় পক্ষ থেকে দাবী করা হয়েছে। রবিবার (০৩ জানুয়ারী) বিকালে ওই ইউনিয়নের চালিতাবাড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে শাখারীকাঠী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের কমিটি গঠনের জন্য সভার আয়োজন করা হয়। সম্মেলন চলাকালীন সময় দু’গ্রæপের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। এসময় হামলাকারীরা ওই ইউনিয়ন আ’লীগের সম্মেলন উপলক্ষে স্থাপনকরা ষ্টেজে অগ্নি সংযোগ সহ প্রায় তিনশতাধীক চেয়ার ভাংচুর করে এবং উপজেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক মো. মোশারেফ হোসেন খানকে এসময় লাঞ্চিত করা হয়।
স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ওই দিন বিকালে ওই ইউনিয়ন আ’লীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে স্থাণীয় ইউনিয়ন আ’লীগের পদ প্রত্যাশী বর্তমান সভাপতি মো. আক্তারুজ্জামান গাউস ও সাধারন সম্পাদক খালিদ হোসেন সজল গ্রæপের সাথে সভাপতি পদ প্রত্যাশী সাবেক সভাপতি মুক্তিযোদ্দা মো. আলমগীর হোসেন ও সাধারন সম্পাদক পদপ্রত্যাশী মো. আল-আমীন খান এই দু’গ্রæপের মধ্যে দু’দফা হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটে। প্রথমে বিকাল সাড়ে তিনটা ও পরে বিকাল পৌনে ৫টার দিকে এ হামলা ও ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।
স্থাণীয় প্রত্যক্ষদর্শী ওই ইউনিয়নের ১নং বাঘাজোড়া ওয়ার্ড আ’লীগের সাবেক সভাপতি মো. মোশারেফ শরীফ জানান, আমরা কিছু লোক ওই দিন বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে সম্মেলন স্থলে এসে দেখি কিছু সন্ত্রাসীরা সম্মেলনের ষ্টেজে অগ্নি সংযোগ চেয়ার-টেবিল ভাংচুর করছে । আমরা এতে বাঁধা দিলে হামলা কারীরা আমাদেরও উপরও হামলা করে।
ওই সম্মেলনের অনুষ্ঠান পরিচালনার দায়িত্বে থাকা ওই ইউনিয়ন আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. নুরুল ইসলাম জানান, তিনি সম্মেলন পরিচালনার জন্য মাইকে কথা বলছেন। এ সময় হঠাৎ কিছু অপরিচিত সন্ত্রাসীরা ষ্টেজের দিকে এসে অগ্নি সংযোগ, বোমা নিক্ষেপ ও গুলি বর্ষন করে। এ সময় তারা বঙ্গবন্ধুর ছবি, ব্যানার ও প্রায় ২ শতাধীক চেয়ার ভাংচুর করে।
ওই ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারন সম্পাদকের পদ প্রত্যাশী মো. আল-আমীন খান জানান, ওই দিন বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে ওই ইউনিয়ন আ’লীগের বর্তমান সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান মো. আক্তারুজ্জামান গাউসের নেতৃত্বে সভামঞ্চে হামলা , অগ্নি সংযোগ সহ গুলি বর্ষনের ঘটনা ঘটে। পরে বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে জেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক ও পিরোজপুর সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মো. মুজিবুর রহমান খালেক ঘটনা স্থলে এসে সম্মেলন উদ্বোধন করেন। এসময় আমরা এগিয়ে গেলে তার সাথে থাকা ক্যাডার বাহিনী আমি সহ আমাদের লোকজনের উপর হামলা করে। এতে আমাদের প্রায় ৭০-৮০ নেতা-কর্মী আহত হয়েছে।
তবে এ হামলার সাথে নিজেকে জড়িত থাকার সকল অভিযোগ অস্বীকার করে ওই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি মো. আক্তারুজ্জামান গাউস বলেন ওই ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারন সম্পাদক পদ প্রত্যাশী মো. আল-আমীন খানের নেতৃত্বে ওই দিন বিকালে প্রথম হামলা হয়। এতে আমার কমপক্ষে ৫০ নেতা-কর্মী আহত হয়েছে। পরের হামলা কারা কিভাবে ঘটিয়েছে তা আমার জানা নাই।
এ ব্যাপারে থানা ওসি (তদন্ত) মো. জাকারিয়া হোসেন জানান, কোন গুলি বা বোমা হামলার ঘটনা ঘটেনি। উভয় পক্ষের কর্মীদের হামলায় কিছু চেয়ার ভাংচুর হয়েছে।

সর্বশেষ