৭ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

নাজিরপুরে নিজের বাল্য বিয়ে ঠেকালো স্কুল ছাত্রী

পিরোজপুর প্রতিনিধি: পিরোজপুরের নাজিরপুরের বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রী (১৩) ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের মাধ্যমে নিজের বাল্য বিয়ে ঠেকালো। ওই স্কুল ছাত্রী উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাতিলাখালী গ্রামের এক দিন মজুরের কন্যা। সোমবার(১৫ আগষ্ট)ওই স্কুল ছাত্রীর বিয়ের তারিখ ধার্য্য ছিলো।
ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক প্রশান্ত কুমার হালদার জানান, গত রবিবার সকালে ওই স্কুল ছাত্রী তার বিয়ে ঠেকাতে আমার কাছে আসলে আমি বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) কে জানাই ।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ আব্দুল্লাহ আল সাদীদ জানান, ওই স্কুল ছাত্রীর বিয়ের জন্য তার পিতা দিন তারিখ ধার্য করেন এবং গত রবিবার বিয়ের মেহমানদের জন্য বাজার করনে। বিষয়টি ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের মাধ্যমে জানতে পেয়ে ওই ছাত্রীর পিতাকে ডেকে আনি। পরে তিনি তার কন্যাকে ১৮ বছরের আগে বিয়ে দিবেন না বলে মুচলেকা দেন।

ওই স্কুল ছাত্রী জানায়, সে লেখা-পড়া করে স্বাবলম্ভী হতে চায়।কিন্তু পরিবার তার আগেই তাকে বিয়ে দিতে চায়। সে বাল্য বিয়ে থেকে রক্ষা পেতে তার বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের কাছে গিয়ে তার বিয়েটি বন্দরে জন্য বলেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ