১৫ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

ন্যাপ ভাসানীর ৬৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

খবর বিজ্ঞপ্তি: অদ্য রবিবার ১ আগস্ট সকাল ১১টায় দলীয় কার্যালয়ে ন্যাপ ভাসানীর চেয়ারম্যান মোসতাক ভাসানীর সভাপতিত্বে জুম ভার্চুয়াল লাইভে ন্যাপ ভাসানীর ৬৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত হয়।
জুম ভার্চুয়ালে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মাননীয় তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি।
আরো উপস্থিত ছিলেন, প্রধান বক্তা সাবেক রাষ্ট্রদূত, হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক নীম চন্দ্র ভৌমিক। আরো ভার্চুয়ালে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ জাসদের সাবেক এমপি ও সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হক প্রধান, কৃষক নেতা মোঃ মাসুম, লোকশক্তি পার্টির সভাপতি সাইকুল আলম টিটুসহ আরো উপস্থিত ছিলেন, কনজারভেটিভ পার্টির সভাপতি আনিসুর রহমান দেশ, কৃষক শ্রমিক পার্টির সভাপতি মোঃ সিরাজুল হক, কাজী আরেফ ফাউন্ডেশনের সভাপতি কাজী মাসুদ আহমেদ ও মোঃ জামিল প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।
সভাপতির বক্তব্যের শুরুতে ন্যাপ ভাসানীর চেয়ারম্যান মোসতাক আহমেদ ভাসানী বলেন, জাতীয় শোক দিবসের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে ১ মিনিট দাড়িয়ে নিরবতা পালন করেন। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু মানেই বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু ও ভাসানী দুই নেতার সমন্বয়েই ভাষা আন্দোলন, ৫৪ সালের যুক্ত ফ্রন্টের বিজয় ও পরবর্তীতে স্বাধীনতার আন্দোলন তরান্বিত হয়েছে।
তিনি আরো বলেন, ৭২ থেকে ৭৫ পর্যন্ত ন্যাপ ভাসানী সক্রিয় ছিল বিধায় কোন অপশক্তি রাজনীতির মাঠ দখল করে নিতে পারেনি। আজ আওয়ামী লীগের উচিত ন্যাপ ভাসানীকে বিভিন্ন সহযোগিতা করে শক্তিশালী করা। তিনি দৃঢ় কণ্ঠে বলেন, ন্যাপ ভাসানী যে পরিমাণ শক্তিশালী হবে বিভিন্ন অপশক্তি সে পরিমাণ দূর্বল হবে এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনার শক্তি সে পরিমান নিরাপদ থাকবে। আজকে জাতির সংকটময় মুহুর্তে ন্যাপ ভাসানীকে সুসংগঠিত করা, শক্তিশালী করা সকল মহলের দয়িত্ব। তাহলেই রাজনীতির ভারসম্য সৃষ্টি হবে। খুব শীঘ্রই সারাদেশ সফর করে গণসংযোগ, সদস্য সংগ্রহ অভিযান ও জেলা উপজেলা কমিটি পুণর্গঠন করে দলকে শক্তিশালী করে তুলবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ