২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম

পটুয়াখালীর অক্সিজেনের ফেরিওয়ালারা রোপন করলো কৃষ্ণচূড়া গাছ

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

মির্জা আহসান হাবিব ঃ
“এসো গাছ লাগাই শহর সাজাই, কৃষ্ণচূড়ায় পটুয়াখালী” এই শ্লোগান নিয়ে পটুয়াখালীতে একদল উদ্যোমী বন্ধু গত কয়েক বছর ধরে শহরের বিভিন্ন স্থানে গাছ লাগিয়ে যাচ্ছে। যারা অক্সিজেনের ফেরিওয়ালা হিসাবে পরিচিত। প্রতিবছরের ন্যায় এবছরও এসকল উদ্যোমী বন্ধুরা মিলে নিজ খরচে স্ব-উদ্যোগে শহরের সোনালী ব্যাংক মোড় থেকে জেলগেট পর্যন্ত রাস্তার দুইপাশে শতাধিক কৃষ্ণচুড়া গাছ রোপন করার উদ্যোগ গ্রহন করেছেন। এরই ধারাহিকতায় আজ বেলা ১১টায় এ কার্যক্রম শুরু হয়। প্রথমদিন এখন পর্যন্ত ত্রিশটি কৃষ্ণচূড়া গাছ রোপন করা হয়েছে। গাছ লাগিয়েই শুধু ক্যান্ত হয়নি এরা। গাছগুলো রক্ষনা বেক্ষনের জন্য গাছের তিনদিকে বাশ দিয়ে নেট পেচিয়ে দেয়া হয়েছে যাতে গবাদিপশুসহ ঝড়বৃষ্টিতে গাছগুলোর যাতে কোন ক্ষতি না হয়। এরপর এগুলো দেখভালের জন্য দুই শ্রমিক নিয়োগ দেয়া হয়েছে। যারা এসব গাছের গোড়ায় পানি ও আগাছা পরিস্কারের দায়িত্ব পালন করবেন। ইতিমধ্যে শহরের পরিত্যক্ত কিংবা রাস্তার পাশে বিভিন্ন ধরনের গাছ রোপন করে বেশ সাড়া জাগিয়েছে। গতবছর এরা বকুল গাছ লাগিয়েছে যা এখন অনেকটা দৃষ্টিনন্দন। আগামী প্রজন্মের জন্য নির্ভেজাল অক্সিজেন ও সবুজ বাতায়নের লক্ষ্যে ১৯৯৫ সালের এসএসসি ব্যাচের কয়েকজন বন্ধু এ গাছ রোপন করেছেন। যা শহরবাসীর দৃষ্টি কেড়েছে। ওদের মতে, এ ধরনের কার্যক্রম দেখে সমাজের অন্যান্যদেরও এগিয়ে আসা উচিত। এরআগে গত পনের দিন ধরে ওই রাস্তার আগাছা পরিস্কার করে গর্ত খুড়ে সেখানে সার পানিসহ আনুষঙ্গিক কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়েছে। বন্ধু মহলের মধ্যে নোমান মিঠু সবার আগে এ কার্যক্রমের উৎসহ জোগায়। ১৯৯৫ সালের এসএসসি ব্যাচের এসকব বন্ধু মহলের মধ্যে রয়েছে নোমান মিঠু, বাবু, মাহবুব তাসিন, ইঞ্জিনিয়ার জামাল, বশির উজ্জামান সুজন, যুবলীগ নেতা আতিকুর রহমান রনিক, এ্যডভোকেট শফিক খন্দকার, বিশিষ্ট ঠিকাদার আকতার হিরু, নাসিম তালুকদার, মনিরুজ্জামান, ঠিকাদার কামাল, এনামুল হক, হিরা মিয়া, রুপক খান, কাউন্সিলর রিয়াজুল হাসান লাবু, আফঅস খান সুজন, ফাগুন খান, মাহবুব বাপ্পি, মুজিব পান্না ও প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারন সম্পাদক যমুনা টেলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি জাকারিয়া হৃদয়। এসব উদ্যোমী বন্ধুরা সকালের কার্যক্রমে উপস্থিত সকল মিডিয়াকর্মীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তাদেরকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। তারা বলেন, তাদের এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। পর্যায়ক্রমে পটুয়াখালী শহরকে তারা সবুজে সমারোহ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

সর্বশেষ