৬ই আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

পিরোজপুরে করোনা রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় শনিবার থেকে ৪ পৌরসভায় লকডাউন

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুরে ক্রমাগত বেড়েই চলছে করোনা রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘন্টায় পিরোজপুরে ১০২টি পরীক্ষায় ৫২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১ জন করোনা রোগীর মৃত্যু হয়েছে।
পিরোজপুরে করোনা বৃদ্ধি পাওয়ায় আগামী শনিবার(২৬ জুন) থেকে ২ জুলাই পর্যন্ত পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া, নেছারাবাদ, ভান্ডারিয়া ও পিরোজপুর পৌরসভা এলাকায় ৭ দিনের জন্য কঠোর লকডাউনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৪ জুন)জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
পিরোজপুর জেলা প্রশাসক আবু আলী মো. সাজ্জাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় পুলিশ সুপার হায়াতুল ইসলাম খান, সিভিল সার্জন ডা. মো. হাসনাত ইউসুফ জাকি উপস্থিত ছিলেন।
সভার সিদ্ধান্তনুযায়ী শনিবার সকাল ৬টা থেকে জেলার ৪টি পৌরসভায় কঠোর লকডাউন কার্যকর করা হবে। নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যপণ্য, মাছ, মাংস. কাঁচাবাজার, ওষুধের দোকান সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। এর বাইরে অন্য সকল প্রকার দোকানপাট, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, মার্কেট বন্ধ থাকবে। আন্ত:জেলা ও দূরপাল্লার সকল বাস চলাচল বন্ধ থাকবে। তবে জেলার মধ্যে অর্ধেক যাত্রী নিয়ে এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে বাস চলাচল করতে পারবে। এছাড়া জেলার বড় বড় হাটবাজারগুলোতে স্বাস্থ্যবিধি প্রয়োগের লক্ষে অভিযান পরিচালনা করা হবে।

পিরোজপুর সিভিল সার্জন ডা. মো. হাসনাত ইউসুফ জাকি জানান, পিরোজপুরে করোনা পরিস্থিতি খবই ভয়াবহ। একদিনে ৫২জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে এবং হাসপাতালে থাকা একজনের মৃত্যু হয়েছে।

জেলা প্রশাসক আবু আলী মো. সাজ্জাদ হোসেন জানান, পিরোজপুর জেলায় চলতি জুন মাসে এ পর্যন্ত ২৪০ জন করোনা শনাক্ত হয়েছে। গত এক সপ্তাহে ৩০৯টি স্যাম্পলের মধ্যে ১১৩ জন শনাক্ত হয়েছে এবং গত ২৪ ঘন্টায় ১০২টি স্যাম্পলের মধ্যে ৫২টি স্যাম্পল পজেটিভ। করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে আগামী ২৬ জুন থেকে পিরোজপুর, মঠবাড়িয়া, ভান্ডারিয়া এবং নেছারাবাদ পৌরসভা এলাকায় লকডাউন ঘোষণা করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ