২৩শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

পিরোজপুরে চেতনা নাশক ঔষধ খাইয়ে চুরি

পিরোজপুর প্রতিনিধি :

পিরোজপুরের নাজিরপুরে রাতে ঘরে থাকার জন্য আশ্রয় চেয়ে পরিবারের সকলকে চেতনা নাশক ঔষধ খাইয়ে ৩ জনকে গুরুতর অসুস্থ করে দুধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (১৮ মে) রাতে উপজেলার শ্রীরামকাঠী ইউনিয়নের দক্ষিন জয়পুর গ্রামে। এ ঘটনায় গুরুতর অসুস্হ গৃহকর্তা ওই গ্রামের মৃত উপেন্দ্রনাথ মিস্ত্রীর ছেলে রমেন মিস্ত্র্রী (৪৩), তার স্ত্রী মালা মিস্ত্রী (৩৮), শ্বাশুরী ঊষা রানী ঢালী (৬০) । অসুস্থ ২ জন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদের মধ্যে রমেন মিস্ত্রীর অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। ভুক্তভোগীর পরিবার ও স্থাণীয় সূত্র জানান, মঙ্গলবার (১৮মে) সন্ধ্যায় বিথি নামের এক নারী উপজেলার গাওখালী গ্রামে বাড়ি পরিচয়ে ওই বাড়িতে পানি খেতে আসেন। পরে অনেক সমস্যার অজুহাত দেখিয়ে রাতে ওই বাড়িতে আশ্রয় চান।রাতে ওই নারীকে নিয়ে পরিবারের সকল সদস্য একসাথে খাবার খেয়ে ঘুমিয়ে পড়ে। সকালে অনেক বেলা হলেও ঘরের কেহ ঘুম থেকে না উঠায় স্থাণীয়রা এসে তাদের ডাকাডাকি করেন। এ সময় ঘরের দরজা খোলা দেখে প্রতিবেশীরা ঘরে ডুকে তাদের অচেতন অবস্থায় দেখতে পায়। পরে তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে চিকিৎসা দেয়া হয়। এ সময় ওই ঘরে রাতে থাকা ওই নারীকে পাওয়া যায় নি। তারা আরো জানান, ঘরের স্বর্নালংকার ও নগদ টাকা সহ প্রায় ৬ লাখ টাকার মালামাল নিয়ে গেছে চোরা চক্রটি। নাজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার মোস্তফা কায়সার জানান, তাদের অবস্থা গুরুতর। তাদের চিকিৎসা চলছে। চেতনা নাশক ঔষধ খায়ানো হয়েছে। নাজিরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (ওসি, তদন্ত) মো. জাকারিয়া হোসেন জানান, এমন কোন খবর থানায় আসে নি।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ