৭ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

পূর্ণিমার প্রভাবে জোয়ারে পানি অস্বাভাবিক বৃদ্ধি,৭ গ্রাম প্লাবিত!

সঞ্জিব দাস, গলাচিপা (পটুয়াখালী)প্রতিনিধি
পূর্ণিমার প্রভাবে জোয়ারের পানি অস্বাভাবিক বৃদ্ধি পেয়ে পটুয়াখালী জেলার গলাচিপা উপজেলা ও রাঙ্গাবালী উপজেলার অনেক গুলো গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। বুধরার জোয়ারের পানি ভাঙা বেড়িবাঁধ দিয়ে লোকালয়ে ঢুকে পড়ে। এতে পানি বন্ধি হয়ে পড়ে হাজারো মানুষ। স্থানীয়রা জানান, বিভিন্ন সময়ের প্রাকৃতিক দূর্যোগে ভেঙে যাওয়া সংস্কার বিহীন বন্যা নিয়ন্ত্রণ বেড়িবাঁধ দিয়ে পানি প্রবেশ করে উপজেলার চালিতাবুনিয়া ইউনিয়নের মধ্য চালিতাবুনিয়া,চিনাবুনিয়াও মরাজাঙ্গী, চরমোন্তাজ ইউনিয়নের চর আন্ডা,উত্তর চরমোন্তাজ সহ তিনটি গ্রাম এবং ছোটবাইশদিয়া ইউনিয়নের কোড়ালিয়া ও মৌডুবী ইউনিয়নের আশাবাড়িয়ার লোকালয়ে পানি ঢুকে যায়।
খোজ নিয়ে জানা যায়, উপজেলার আশাবাড়িয়া,জাহাজমারা, গঙ্গিপাড়া ,চরযমুনা,উত্তর চরমোন্তাজ ,চরগঙ্গাসহ বেড়িবাধের বাহিরে থাকা এসব এলাকার মাছের ঘের ও পুকুর ডুবে কয়েক লক্ষ টাকার মাছ ভেসে গেছে। জোয়ারের পানিতে বিপাকে থাকা বাসিন্দারা জানিয়েছেন, জোয়ারের পানিতে একদিকে তাদের দূভোগ, আবার তাদের জানমালেরও ক্ষতি হচ্ছে। তাই টেকসই বেড়িবাঁধ নিমার্ণের দাবি জানান তারা।
চালিতাবুনিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মু.জাহিদুর রহমান বলেন, চালিতাবুনিয়ার তিন গ্রাম পানিতে প্লাবিত হয়েছে। অনেক বাড়িঘর পানিতে তলিয়ে গেছে। ২ টা যায়গায় বাঁধ নির্মাণ হয়নি এখনো। ওখান দিয়ে লোকালয়ে পানি প্রবেশ করেছে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ