২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
বরিশালে পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত ৩ রাঙাবালীতে ইয়াবাসহ আটক-১ ঝালকাঠিতে স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগ স্বামীর বিরুদ্ধে আমতলীতে গরমে মাথা ঘুরে পড়ে গিয়ে নারীর মৃত্যু বরিশালে পুনর্বাসন ছাড়া হকার উচ্ছেদ বন্ধের দাবি রাজাপুরে শিক্ষার্থীদের অনুদানের বরাদ্দ ৫ হাজার, কিন্তু পেয়েছে ৩ হাজার! বরিশালে দরিদ্র মানুষের সংখ্যা বেশি থাকায় বেড়েছে শিশু শ্রমের হার নারী ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে প্রবাসীর স্ত্রীকে মারধর করে মাথা ফাটিয়ে দেয়ার অভিযোগ সিরাজগঞ্জে উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থীদের মাঝে প্রতিক বরাদ্দ প্রদান ৫ হাজার টাকা বরাদ্দ শিক্ষার্থীরা পেল ৩ হাজার রাজাপুরের সোনারগাঁও স্কুলের সভাপতি ও প্রধান শিক্ষকের বি...

ফের বন্ধ হচ্ছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ?

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

বাণী ডেস্ক: করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে প্রয়োজনে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।
আজ বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) রাজধানীর সরকারি শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ কেন্দ্র পরিদর্শনে গিয়ে সাংবাদিকদের এ কথা জানান তিনি।
ডা. দীপু মনি বলেন, ‘আমরা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি। টেকনিক্যাল কমিটির সঙ্গে আলোচনা চলছে। বিজ্ঞানের বাইরে গিয়ে তো কিছু করতে পারবো না।’
তিনি বলেন, ‘সবকিছুর ঊর্ধ্বে আমাদের সন্তানদের সুরক্ষা। তাদের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিতে আমরা সবকিছু করতে প্রস্তুত আছি।’
শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘আমরা দেখলাম পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। পরীক্ষা হলে তো সবাই স্বাস্থ্যবিধি মানছে। যেটুকু দেখেছি আমরা সন্তুষ্ট। বাইরে অভিভাবকরা আছেন তারা যেন স্বাস্থ্যবিধি মানেন। সবাই যদি স্বাস্থ্যবিধি মানি তাহলে ওমিক্রনের যে আশঙ্কা দেখা দিয়েছে তাতে শুধু পরীক্ষার্থী নয়, সারাদেশকে করোনা মুক্ত রাখতে পারব। এজন্য সবাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন।’
অভিভাবকদের ভিড়ের বিষয়ে তিনি আরও বলেন, ‘পাবলিক পরীক্ষা যেভাবে অভিভাবকরা গুরুত্বের সঙ্গে নেন। সে কারণে হলের ভেতরে যেভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানানো যায়, গেটের বাইরে যারা আছেন তাদের স্বাস্থ্যবিধি মানানো একবারেই শক্ত হয়ে পড়ে। তাদের কিছু করা যায় না। তাই তাদেরই সচেতন থাকতে হবে, তারা যেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলেন। তারা যেন সামাজিক দূরত্ব মেনে চলেন। অন্তত মাস্ক যেন ব্যবহার করেন—এটুকু তো আমরা তো আশা করতেই পারি। কারণ তারা আক্রান্ত হলে তাদের সন্তানরাও আক্রান্ত হবেন।’

সর্বশেষ