৭ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

বরিশালে একাঘরে পেয়ে ভাতিজিকে ধর্ষণঃ চাচা আটক

রাসেল কবির: বরিশালের কাজীরহাট থানাধীন বিদ্যানন্দপুর ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের পূর্ব রতনপুর গ্রামের ব্যাংকেরহাট সংলগ্ন মোতাহার চৌকিদার ওরফে হাওলাদারের লম্পট ছেলে হাবিব হাং (৪৯) গত ১১ অক্টোবর দুপুর আনুমানিক ১২ ঘটিকার সময় লম্পটের কিশোর ভাতিজি (১৫) কে জোর পূর্বক ধর্ষনের ঘটনা ঘটনায় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ধর্ষনের ঘটনায় কাজীরহাট থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ লম্পট ধর্ষক হাবিব হাং কে ১২ অক্টোবর দড়িচরখাজুড়িয়া ইউনিয়নের বামনেরচর এলাকা হতে আটক করে কাজীরহাট থানায় নিয়ে আসে।
কিশোরের মা নারগিস বেগম জানায়, আমার মেয়ে পার্শ্ববর্তী লতা ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের চরউদয়পুর গ্রামে আমার ভগ্নিপতি নাসির ঘরামীর বাড়ি বেড়াতে যায়। ঘটনার দিন আমার বোন জাহানারা পাশের বাড়ি তালিমে যায়। মেয়ে একাই ঘরে এই সুযোগে আমার দেবর বসত ঘরে প্রবশ করে মুখ চেপে ধর্ষনের ঘটনা ঘটায়। ঐ মুহুর্তে আমার ভগ্নিপতি ঘরে প্রবশ করে লম্পট হাবিব হাং দৌড়ে পালিয়ে যায়। আমার মেয়ে কেঁদে কেঁদে আমার বোনে জাহানারার এবং আমার কাছে ঘটনা খুলে বলে । আমি বিষয়টি বাড়ির সোহাগ হাং ও আলী হাং নিকট জানাই । দু” জনেই আমাকে সহ মেয়েকে হুমকি দেয় অন্য কাহারো নিকট জাইলে পরে দেখিয়ে দিবে এবং আমরাই মিমাংসা করিব বরে জানায়। আলী হাং জানায় এটা তো আমাদের পারিবারিব বিষয় আমরাই মিমাংনা করিব। সোহাগ হাং জানায়, কোন কিছু ঘটে নাই। ধর্ষণের বিষয় পুলিশ জানতে পেরে ভিকটিমর বসত বাড়ি গেলে সোহাগ হাং পুলিশদের সাথে উত্তোজনা করে ঘটনা ধামা চাপা দেওয়ার জন্য। এক পর্যায় পুলিশের তদন্ত কাজে বাধা দেওয়ার চেষ্টা চালালে ঘটনা স্থলে পুলিশ উত্তম মাধ্যম দেয় সোহাগ হাং কে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ