১৯শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
চরবাড়িয়ায় স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর প্রচারনার অটো নদীতে নিক্ষেপ পবিপ্রবিতে মেধাবী শিক্ষার্থীকে আত্নহত্যায় প্ররোচনা ও ঘুষের বিনিময়ে নিয়োগে ৭ জনকে লিগ্যাল নোটিশ পাথরঘাটায় হরিণের চামড়া-মাংসসহ ফাঁদ জব্দ উজিরপুরে বসতঘরে হামলায় নারী-শিশুসহ আহত ৮ ভোলায় ডোবায় পড়ে শিশুর মৃত্যু বরিশালে আওয়ামী লীগের ১০ বিদ্রোহী প্রার্থীসহ ১৯ জন বহিষ্কার বরিশাল বিভাগে ৫৬ জনের করোনা শনাক্ত মেহেন্দীগঞ্জ ও হিজলায় নদীভাঙ্গন রোধ ও ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসনের দাবি করোনায় ৪৮ দিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু, শনাক্ত ৩০৫৭ গৌরনদীতে জনগুরুত্বপূর্ণ সেতু দখল করে আ’লীগ নেতার নির্বাচনী কার্যালয়!

বরিশালে ছাত্রলীগ কর্মীকে হত্যাচেষ্টার মামলায় সুজনের ভাই স্বপন আটক

স্টাফ রিপোর্টার : বিতর্কিত ছাত্রলীগ নেতা সুজনের বিচার ও গ্রেপ্তারের দাবী জানিয়েছে বন্দর থানার লোকজন। ১৮ মে দিনগত রাতে
লাহারহাট এলাকা থেকে সুজনের ভাই স্বপনকে গ্রেপ্তার করেছে বন্দর থানা পুলিশ।
এদিকে সুজনকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানালেন ওসি। রাহাতকে হাতুড়ি দিয়ে পেটানোর ঘটনায় স্বপনসহ এ পর্যন্ত তিনজনকে আটক করা হয়।

সুজনের হাতুড়ি পেটায় রাহাত এখন ঢাকার নিউরো সাইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে । একটি অপারেশন হয়েছে মাথায়। তার জ্ঞান ফিরেছে। রাহাতের পরিবার সকলের নিকট দোয়া চেয়েছে।

১৫ মে সদর উপজেলার টুঙ্গিবাড়িয়ার মোল্লাবাড়ি বাসস্ট্যান্ড এলাকায় আশিকুর রহমান সুজন তার সহযোগীদের নিয়ে ছাত্রলীগ কর্মী রাহাতকে হাতুড়ি পিটা দিয়ে গুরুতর আহত করে। গুরুতর আহত হওয়ায় রাহাতকে স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।অবস্থার আরো অবনতি হলে রাহাতকে ১৫ মে রাতেই ঢাকায় রেফার করা হয় উন্নত চিকিৎসার জন্য।বর্তমানে রাহাত ঢাকার নিউরো সাইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। ঘটনার পর পরই বন্দর থানা পুলিশ সুজনের দু সহযোগী রবিন ও মেহেদীকে আটক করেছে। ১৬ মে বন্দর থানা পুলিশ আদালতে হাজির করে। আদালত দুজনকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ প্রদান করেন।

এ ব্যাপারে বন্দর থানার ওসি আনোয়ার হোসেন তালুকদার বলেন, রাহাতের ওপর হামলার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে যায়। এবং রাহাতের বাবার অভিযোগের ভিত্তিতে সুজনসহ ২৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা গ্রহণ করা হয়েছে। সেই মামলায় সুজনের ভাই ও ২ অনুসারীকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। সুজনকে গ্রেপ্তারে বিভিন্ন স্থানে অভিযান চলছে।ওসি বলেন,অপরাধীদেরকে বিন্দু মাত্র ছাড় দেয়া হবেনা। সে যেই হোক।

এদিকে অভিযোগ উঠেছে বরিশাল লঞ্চঘাটের চার পথ শিশু দিয়ে শহরে শহরে পোস্টার লাগানোর বিল আজও দেয়নি বহিস্কৃত ছাত্রলীগ নেতা সুজন।এ ব্যাপারে পথ শিশু মেহেদী জানান,আমাদের চার জনকে দিয়ে পোস্টার লাগায় আশিকুর রহমান সুজন। আমাদের চারজনকে দু হাজার টাকা দেয়ার কথা ছিল। আজ ১৭ মে পর্যন্ত আমাদের সেই টাকা দেয় নাই। টাকা চাইতে গেলে আমাদের মারধর করে এবং টাকা না চাওয়ার জন্য হুমকি দেয়। রাত তিনটা পর্যন্ত আমরা কত কস্ট করে বড় বড় পোস্টার লাগিয়েছি। আমাদের পোস্টার লাগানোর বিল না দিয়ে উল্টো মারধর করে। মেহেদী বলেন আল্লাহ বিচার করবেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ