৭ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

বরিশালে জাসদের সমাবেশ ও শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত

বরিশাল বাণী: বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) কেন্দ্রীয় যুগ্ন সম্পাদক মো. মোহসিন বলেছেন, “শুধু ইটপাথর দিয়ে উন্নয়ন করলেই প্রকৃত উন্নয়ন হয়না, মানুষের জীবনমান উন্নয়ন করাও রাষ্ট্রের দায়িত্ব। বর্তমান আওয়ামীলীগ শাসনমালে দেশে দৃশ্যমান উন্নয়ন হলেও তৃনমূলের মানুষ ভাল নেই। দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতিতে মানুষ দিশেহারা। তারমধ্যে জ্বালানী তেলের মূল্যবৃদ্ধি যেন মড়ার ওপর খড়ার ঘা হয়ে দেখা দিয়েছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি তৃনমূলের খোঁজখবর নিয়ে দেখুন, আপনার সরকার জনগণের কি অবস্থা আছে।
শনিবার বেলা ১১টায় বরিশাল নগরীর অশ্বিনী কুমার হল চত্বরে বরিশাল জেলা ও মহানগর জাসদ আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মো. মোহসিন এসব কথা বলেন। জাসদের ৪৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশ শেষে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর শোভাযাত্রা নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। সমাবেশ শুরুর আগে বিভিন্ন জেলা উপজেলা থেকে খন্ড খন্ড মিছিল এসে অশ্বিনী কুমার হলের সমাবেশে যোগদেয়।
জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. মহসিন বলেন, প্রধানমন্ত্রী আপনি উন্নয়নের কথা বলেন আপনার ও সরকারের মধ্যে দূর্নীতির উৎসব চলছে।
মো. মোহসিন প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশ্যে বলেন, আপনার দলের মধ্যে যে সাম্প্রদায়ীক ও দূর্নীতিবাজ রয়েছে তাদের নিবৃত্ত করতে না পারলে আপনার উন্নয়ন জনগণের কোন কাজে আসবে না। পূজা মন্দিরে হামলাকারী সম্প্রদায়ীক শক্তি আপনরা দলের মধ্যেই রয়েছে। দূর্ণীতিবাজদের মহাউৎসব বন্ধ করতে না পারলে আপনার সকল উন্নয়ন ম্লান হয়ে যাবে।
তিনি বলেন, বিনাভোটে নির্বাচন করে সরকারে ক্ষমতায় যাওয়া জাসদ কোনদিন সমর্থন করেনি, করবেও না। তিনি নির্বাচন ব্যবস্থা মানুষের আস্থার মধ্যে ফিরিয়ে আনাসহ বিচার ব্যবস্থা আইনের মধ্যে রেখে বিচার বিভাগকে স্বাধীনভাবে কাজ করতে দেয়ার জন সরকারের প্রতি আহ্বান জানন।
মো. মহসিন আরো বলেন, স্বাধীনতার ৫০ বছরে দেশে গড় আয়ু, মাথা পিছু আয়, জীবন-যাপনের মান বৃদ্ধি, চরম দারিদ্র হ্রাস, বিদ্যুতায়ন ও যোগাযোগ অবকাঠামোর সম্প্রসারণসহ দেশের আর্থ-সামাজিক ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য উন্নয়ন হয়েছে। তবে ধর্মান্ধ সাম্প্রদায়িকতা-মৌলবাদ-জঙ্গিবাদ, দুর্নীতি ও লুটপাট, দলবাজী ও রাজনীতিতে গুন্ডাতন্ত্র, আর্থ-সামাজিক বৈষম্য দেশে মহাবিপদ হয়ে দেখা দিয়েছে। ওরা রাষ্ট্রের অস্তিত্বকে করছে। সংবিধান-আইন-কানুন ও রাজনৈতিক নেতৃত্বকে চ্যালেঞ্জ করছে বৃদ্ধাঙ্গুুলি দেখাচ্ছে। এই অবস্থা থেকে দেশকে আরেকধাপ এগিয়ে নিতে রাষ্ট্রের চিরশত্রু ধর্মান্ধ সাম্প্রদায়িকতা-মৌলবাদ-জঙ্গিবাদ নির্মূল করে দিতে হবে। সাম্প্রদায়িক হামলা পুনরাবৃত্তি চিরতরে বন্ধ করে রাজনৈতিক ও সামাজিক শান্তি নিশ্চিত করতে হবে।
মো. মোহসিন তার নিজ সংসদীয় আসন বাকেরগঞ্জের উন্নয়ন নিয়ে হতাশা প্রকাশ করে বলেন, একটি পরিবারের স্বামী-স্ত্রী পালাক্রমে ৪০ বছর বাকেরগঞ্জের ক্ষমতায় রয়েছে। তাদের কোন ব্যবসায়ীক ট্রেড লাইন্সেন্স নেই। বাকেরগঞ্জের জনগণই তাদের ব্যবসার পুজি। জনগণকে পুজি করে এ পরিবারটি শত শত কোটি টাকার মালিক হলেও বাকেরগঞ্জ কোন হয়নি। ২০২৩ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাকেরগঞ্জ আসনের মহাজোটের মনোনয়ন নিয়ে দক্ষিণাঞ্চলের রাজনৈতিক অভিবাবক আবুল হাসানাত আবদুল্লাহকে হস্তক্ষেপ চেয়েছেন মো. মোহসিন।
সমাবেশে জাসদের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ সরকারের উদ্দেশ্যে বলেন, জাসদ সব ভাল কাজে সরকারের সঙ্গে আছে। চলমান ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে বিনাভোটে জয়ী হওয়ার প্রবানতা এদেশের মানুষকে ভোটাধিকার বঞ্চিত করছে। এ অনৈতিক প্রথা বন্ধ করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানান জাসদ নেতৃবৃন্দ।
বরিশাল জেলা জাসদ সভাপতি অ্যাডভোকেট আ: হাই মাহাবুবের সভাপতিত্বে সমাবেশে অরো বক্তৃতা করেন কেন্দ্রীয় যুব জোটের সহ-সভাপতি আশিকুর রহমান বাবু, বীর মুক্তিযোদ্ধা দুলাল চন্দ্র সাহা, বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিদ্দিকুর রহমান, কে.এম আনোয়ারুজ্জামান চুন্নু, পিরোজপুর জেলা সভাপতি সাইফুল ইসলাম ডালিম, বরিশাল মহানগর জাসদ সাধারণ সম্পাদক মোসলেম সিকদার, জেলার সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ হোসেন, যুগ্ন সম্পাদক এনায়েত হোসেন ছানা ও আশরাফুল হক মুন্না প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ