৬ই আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

বরিশালে ফুটবল খেলতে গিয়ে বিদ্যুতপৃষ্টে ৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীর মৃত্যু

রাসেল কবির:

বরিশালের কাজীরহাট থানাধীন জয়নগর ইউনিয়নের ৯ নং ওর্য়াডের পূর্ব কাদিরাবাদ গ্রামের পল্লী চিকিৎসক মিজানুর রহমান মুন্সীর ছেলে বি, কে মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রিফাত (১৭)। ১৩ জুলাই সকাল ১০.১৫ মিনিটে ফুটবল খেলতে দিয়ে বাড়ির পশ্চিম পার্শ্বে ভংগা এহছাকিয়া কেরাতুল পুরাতন ও লিল্লাহ বোডিং মাদরাসার মাঠে বিদুৎ পৃষ্ঠে মারা গেছে বলে নিহতের পরিবার সূএে জানায়। নিহতের বাবা মিজানুর রহমান মুন্সী জনায়, আমার ছেলে বন্ধুদের সাথে মাঠে খেলতে গিয়েছিল। মাদরাসায় বিদুৎতের আড়তিং তার শরিলে র্স্পশ হলে ঘটনা স্থলে মাটিতে লুটে পড়ে। মাদরাসা প্রতিষ্ঠাতা ক্বারী সাওখাত হোসেনের ছেলে একরামুল দেখতে পেয়ে তার বাবাকে চিৎকার করে বলে বিদূৎ লাইনের তার কেটে দেন। লাইনের তার কাটার পর লোকজন দ্রুত চিকিৎসার জন্য মুলাদী উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নেওয়ার পথিমধ্যে মারা গেছে বলে জানায়। এ সংবাদ কাজীরহাট থানা পুলিশ জানতে পেয়ে ঘটনা স্থলে এস আই অহিদুল ইসলাম ও এস আই আব্বাস যায়। নিহত পরিবারের দাবী আমরা কাউকে এ বিষয় অভিযোগ করতে চাই না। স্বেচ্ছায় আমার ছেলেকে পোষ্ট মার্ডেম ছাড়াই দাফন করতে চাই। এ বিষয় নিহতের মা ফারজানা কান্না করে বলেন আমরা কাউকে দায়ী করি না। জয়নগর আ”লীগ সভাপতি সেকান্দার আলী জাফর তিনি জানায়, ঘটনা স্থলে এসে যতটুকু জানতে পারলাম ইহাতে অন্য কেউ দায়ী না। স্থাণীয় ইউপি সদস্য শহিদুল ইসলাম জানায়, এই মুত্যু নিয়ে কাউকে অভিবাবকেরা দায়ী করেনা। ইউপি সদস্য টিপু বেপারী তিনি বলেন আমার ভাতিজা ছিল রিফাত ৯ম শ্রেণীর ছাএ যেমন মেধাবী তেমন ভালো একজন ছেলে ছিল। এস আই অহিদুল ইসলামের সাথে জানতে চাইলে তিনি জানায়, নিহতের পরিবারবর্গরা কেউ অভিযোগ বা আইনী প্রক্রিয়ার মাধ্যমে আসতে রাজী না। লাশ স্বেচ্ছায় দাফন করবে এই প্রতিশ্রুতি দিয়ে কাজীরহাট অফিসার ইনচার্জ বরাবর দরখান্ত দিয়েছেন বলে জানায়।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ