১৫ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম

বানারীপাড়ায় ভয়ঙ্কর রূপে কিশোর গ্যাং, যুবককে হত্যা চেষ্টায় নির্মম নির্যাতন

বানারীপাড়া (বরিশাল) প্রতিনিধি :: বরিশালের বানারীপাড়ায় কিশোর গ্যাংয়ের দৌরাত্ম্য বেড়ে গেছে। দিন দিন এরা ভয়ঙ্কর রূপে আত্মপ্রকাশ করছে। মাদক, ইভটিজিং ও প্রতিপক্ষ গ্রুপের ওপর হামলাসহ নানা সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছে। এছাড়া তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিনিয়ত জড়িয়ে পড়ছে নানা ধরনের অপকর্মে। ইতোমধ্যে তাদের বিরুদ্ধে উঠে এসেছে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ। উপজেলার সদর ইউনিয়নের গাভা-নরেরকাঠি বধ্যভূমি এলাকায় সিনিয়র জুনিয়রকে কেন্দ্র করে মোঃ লিমন নামে এক যুবককে নির্মমভাবে নির্যাতন চালানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে। এমনকি ওই যুবক গুরুতর আহত হলেও পুনরায় হামলার শিকার হওয়ার ভয়ে বানারীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিতে না পেরে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২০ মে) সন্ধ্যায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের গাভা-নরেরকাঠি মধ্যভূমি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত লিমন ওই এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত সেকান্দার আলী হাওলাদারের ছেলে।

বানারীপাড়া থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক ওসমান গনি জানান, সিনিয়র জুনিয়র নিয়ে নাম ধরে ডাকাকে কেন্দ্র করে লিমন নামে একজনকে হামলা চালায় কিছু জুনিয়র ছেলেরা। পরে এলাকাবাসী ধাওয়া করলে হামলা করীরা সবাই পালিয়ে গেলেও এদের মধ্যে শান্ত কুণ্ড নামে এক হামলা কারী কে স্থানীয়রা আটক করে। শান্ত কুুুুন্ডু বানারীপাড়া পৌর আওয়ামী লীগ ও বন্দরবাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি সুব্রত লাল কুন্ডের ছোট ছেলে। বানারীপাড়া থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে আসার পূর্বে আটক শান্ত কুন্ডুকে তার গ্রুপের ছেলেরা দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে ফিল্মি ষ্টাইলে ছিনিয়ে নেয়।

আহত লিমন জানান, গত বুধবার বিকেলে গাভা বধ্যভূমি এলাকায় কিশোর গ্যাংয়ের লিডার শান্ত কুন্ডু, ডেন্ডি কালু, সাকিব ও রাফিনসহ কয়েকজন লিমনকে নাম ধরে ডাকে। লিমন ওদের সিনিয়র হওয়ায় সে নাম ধরে ডাকার প্রতিবাদ করে। এটাকে কেন্দ্র করে পরের দিন বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় বানারীপাড়া পৌর শহর থেকে গিয়ে গাভা-নরেরকাঠি বধ্য ভূমি এলাকায় গিয়ে কিশোর গ্যাং লিডার শান্ত কুন্ডু, ডেন্ডি কালু, লিমন, সাকিব, রাফিন, সুইট মল্লিক, পুর্ণ্য ও শোভনসহ অর্ধশতাধিক সদস্যরা হত্যার চেষ্টায় লিমনের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। পরে এলাকাবাসী জানতে পেরে তাদের ধাওয়া করলে তারা পালিয়ে যায়। এদের মধ্যে কিশোর গ্যাং সদস্যের অন্যতম শেল্টার দাতা শান্ত কুন্ডুকে এলাকাবাসী আটক করে উত্তম মধ্যম দেয়। আটকের এক ঘন্টা পর দ্বিতীয় দফায় কিশোর গ্যাং সদস্যরা তাণ্ডব চালিয়ে দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে শান্ত কুন্ডকে ফিল্মি স্টাইলে ছাড়িয়ে নিয়ে যায়। তার পিতা প্রভাবশালী আওয়ামী লীগ নেতা হওয়ায় সে দিন দিন বেপরোয়া হয়ে উঠছে। জানা গেছে এদের অধিকাংশই মাদকের সাথে জড়িত।

বানারীপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ হেলাল উদ্দিন জানান, হামলার ঘটনা শুনেছি অভিযোগ দিলে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ ব্যপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে আহত লিমনের পরিবার জানান।

প্রসঙ্গত বানারীপাড়া পৌর শহরসহ উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে অসংখ্য কিশোর গ্যাং সৃষ্টি হয়ে শান্তির জনপদ অশান্ত হয়ে উঠছে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ