১৮ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
গলাচিপায় নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রীর আগমনে উপজেলা আওয়ামী লীগের ফুলেল শুভেচ্ছা মাধবপাশায় ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ এর উদ্যোগে নৌকার ব্যাপক গণসংযোগ দেহেরগতি আ'লীগ নেতা মাসুম রেজার নেতৃত্বে নৌকার ব্যাপক গণসংযোগ আল্লাহ’র পরে কৃতজ্ঞতা সদ্ব্যবহার ও মান্যতা পাওয়ার সবচেয়ে উপযুক্ত মাখলুক ‘পিতা-মাতা’ প্রবীন সাংবাদিক সরওয়ারের মৃত্যুঃ জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা’র শোক বরিশাল-কুয়াকাটা মহাসড়কে রাতে ছিনতাইকালে চাইনিজ কুড়ালসহ তিন কিশোর গ্রেফতার ব্রিজের উপর বাশের সাঁকো ! কাজীরহাটে সাবেক চেয়ারম্যান বাড়ীর সম্মুখে জনদূর্ভোগ বেতাগীর কাজীরাবাদ ইউনিয়নে সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে সংশয় উজিরপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে দিনমজুরের আত্মহত্যা কেদারপুরে ভ্যান প্রতীকের প্রার্থীর কর্মীকে মারধর

মুলাদিতে মেয়ে জামাতাকে তালাক না দেয়ায় নাতনিকে আছাড় মারলো নানি

নিজস্ব প্রতিবেদক :: বরিশালের মুলাদী উপজেলার চরকালেখান গ্রামে আট মাস বয়সী নাতনিকে আছাড় দিয়ে হত্যাচেষ্টার ঘটনায় নানির বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে। আহত নাতনির নাম নুশরাত। তাকে মুলাদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় বুধবার (২ জুন) বিকেলে শিশু নুশরাতের মা নিশি আক্তার মুলাদী থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযোগে তার মা রাজিয়া বেগমকে গ্রেফতার করে কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়েছেন তিনি।

অভিযুক্ত রাজিয়া বেগম চরকালেখান ইউনিয়নের চরকালেখান গ্রামের শাহজাহান ঘরামীর স্ত্রী। অভিযোগকারী নিশি আক্তার তার আপন মেয়ে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ২০১২ সালে একই এলাকার রেজাউল করিম নামের এক যুবকের সঙ্গে নিশি আক্তারের পরিচয় হয়। পরে রেজাউল করিমের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তখন তার মা রাজিয়া বেগম এতে বাধা দেন। ২০১৩ সালে মায়ের ইচ্ছের বিরুদ্ধে গিয়ে তিনি রেজাউল করিমকে বিয়ে করেন। এতে তার মা রাজিয়া বেগম ক্ষিপ্ত হন। বিয়ের দু’বছর পর তার কন্যাসন্তান হয়। তবে তার মা রাজিয়া বেগম তাদের বিয়ে তখনও মেনে নিতে পারেননি। মেয়ে থাকা সত্ত্বেও রাজিয়া বেগম ২০১৯ সালে তাকে (নিশি আক্তার) রেজাউলকে তালাক দিতে বাধ্য করান। পরবর্তীতে নিশি পালিয়ে গিয়ে তালাকনামা প্রত্যাহার করে নেন। এ কারণে ২০২০ সালে রাজিয়া বেগম তাকে ঢাকায় একটি বাসায় আটকে রেখে মারধর করেন।

শনিবার (২৯ মে) রাজিয়া বেগম তার জামাতা রেজাউলের বাড়িতে বেড়াতে আসেন। রাজিয়া বেগম মেয়ে নিশি আক্তারকে বলেন, তার বাবা শাহজাহান ঘরামী অসুস্থ। তাকে বাড়ি গিয়ে দেখে আসতে বলেন। বুধবার সকালে তিনি বড় মেয়েকে স্বামীর কাছে রেখে ছোট মেয়েকে নিয়ে বাবার বাড়িতে যান। ওই সময় রেজাউলকে দ্বিতীয়বার তালাক দেয়ার জন্য তাকে (নিশি আক্তার) চাপ দেন রাজিয়া বেগম। তালাক দিতে অস্বীকার করলে রাজিয়া বেগম তাকে মারধর করেন এবং তার কোল থেকে মেয়ে নুশরাতকে ছিনিয়ে নিয়ে আছড়ে হত্যার চেষ্টা চালান। এসময় নিশির চিৎকারে প্রতিবেশীরা এসে তাদের উদ্ধার করেন। পরে স্থানীয়রা মেয়ে নুশরাতকে উদ্ধার করে দ্রুত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় বুধবার বিকেলে নিশি আক্তার তার মা রাজিয়া বেগমের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ