১৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম

ময়লা-আর্বজনায় নষ্ট হচ্ছে পায়রা সেতু, কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আর্কষন !

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

রিপোর্ট এম সাইফুল ইসলাম রাজু –
ময়লা- আর্বজনার ভাঁগাড়ে পরিনত হতে শুরু করেছে পায়রা সেতু। প্রতিদিন হাজার হাজার পর্যটকদের ফেলানো ময়লায় ইতমধ্যে স্তুপ তৈরি হয়েছে। সেতুর মাঝখানে ফাঁকা অংশ রাখায় বেশিরভাগ ময়লা সেখানে ফেলা হচ্ছে। কেউবা আবার সেই ফাঁকা জায়গায় দোকান বসিয়েছে। বাদাম, ঝালমুড়ি, ফুসকা, চটপটি, হালিম, চপ , চিড়াভাজা সহ নানা খাবারের হাট মেলে এখানে। সেসব খাবার খেয়ে লোকজন সেতুর উপরেই কাগজের টুকরা, টিস্যূ ইত্যাদি ফেলে রাখে কেউবা আবার সরাসরি নদীতে ফেলে। সেতুর উপর কোন প্রকার ডাস্টবিন না থাকায় রীতিমত ময়লার ভাগারে পরিনত হতে শুরু করেছে নান্দনিক ডিজাইনে তৈরি পায়রা সেতুটি। সেতুতে ঘুরতে আসা এইচ এম রুবেল জানান, দক্ষিণাঞ্জলের সবচেয়ে এখন দর্শনীয় স্থান হচ্ছে পায়রা সেতু। প্রতিদিন অনেক মানুষ এখানে ঘুরতে আসে। আর এ সেতুকে ঘীরে অনেক মানুষের জীবিকা নির্বাহ হচ্ছে। কিন্তু তাদের বিক্রিত মালামালের ময়লা অংশ ফেলা হচ্ছে সেতুতে। যেটা খুবই দুঃখজনক। তাছাড়া সেতুতে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতার জন্য কোন ব্যবস্থা না থাকায় নষ্ট হচ্ছে সেতুর পরিবেশ। এছাড়া দেখলাম সেতুর চার লেনের মাঝে যে ফাঁকা জায়গা রয়েছে সেখানে অনেকে দোকান দিয়ে বসেছে। কেউ কেউ আবার সুযোগ পেয়ে এখানে ময়লা ফেলে রাখছে। এভাবে চলতে থাকলে হয়তো সেতুর পরিবেশ নষ্ট হতে আর বেশি সময় লাগবে না। তাই আমার মতে কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি দেয়া উচিৎ। দক্ষিণাঞ্চল বাসীর জন্য পরম সৌভাগ্যের বিষয় হচ্ছে লেবুখালী সংলগ্ন পায়রা নদীর উপর নির্মিত এ সেতুটি। কিন্তু অযত্ন অবহেলায় নষ্ট হয়ে যাবে এর সৌন্দর্য্য। সেতুটিতে দূঘর্টনা এড়াতে পুলিশের টহল থাকলেও ময়লা আর্বজনা ফেলা রোধ করা যাচ্ছে না। এ ব্যপারে সেতু কর্তৃপক্ষের সজাগ দৃষ্টি আর্কষন করছে সচেতন মহল।

সর্বশেষ