১৭ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

যুবককে মারধরের সময় উদ্ধার করেনি থানা পুলিশ!

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পুলিশের উপস্থিতিতে এক যুবককে মারধরের অভিযোগ উঠেছে চাচাতো ভাইদের বিরুদ্ধে। বৃস্পতিবার (১১)ফেব্রুয়ারী) এ হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে।

হামলার শিকার যুবকের নাম শাহ এমরান মুসা। সে পৌর ৭নং ওয়ার্ডের নাসিরউদ্দিনের ছেলে।

চাচাতো বোনের বিরুদ্ধে বদনাম রটানোর অভিযোগ তুলে চাচাতো ভাই ইব্রাহিম ও মেহেদি মুসার বসত ঘরে হামলা চালিয়ে দরজা জানালা ভাংচুর করে বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী মুসা।

এসময় দরজা বন্ধ করে ঘরের ভিতরে ছিলেন মুসাসহ তার পরবার । স্বজনরা ঘটনাটি পুলিশকে জানিয়ে সহয়তা কামনা করলে পুলিশ ঘটনা স্থলে যায়, একই সময়ে সেখানে স্থানীয় জন প্রতিনিধি মোস্তাহিদুল হক তানভির উপস্থিত হন।

তিনি বিষয়টি ফয়সালা দেয়ার চেষ্টা কালে মুসার চাচাতো ভাই মেহেদি এবং ইব্রাহীম মুসাকে মারধর শুরু করেন। এসময় পুলিশ সদস্যরা মুসাকে উদ্বার না করে ঘটনাস্থলে নিরব দাঁড়িয়ে ছিলেন বলে সংবাদকর্মীদের কাছে অভিযোগ করেন মুসা।

ওয়ার্ড জনপ্রতিনিধি মোস্তাহিদুল হক তানভির জানান, তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে বিষয়টির সমাধা দেয়ার চেষ্টা করেছেন তবে প্রতিপক্ষ ইব্রাহিম এবং মেহেদি তার সামনে মুসাকে মারধর করেছে। এসময় সেখানে অবস্থানরত পুলিশ মুসাকে উদ্ধার না করে হাতকড়া লাগানোর চেেষ্টা করেন।

তবে পরে চরফ্যাশন থানা থেকে দ্বিতীয় দফায় এস আই ছিদ্দিকুর রহমানসহ ফোর্স ঘটনাস্থলে গিয়ে মুসাকে হামলাকারীদের কবল থেকে রক্ষা করেন। চরফ্যাশন থানার ওসি মনির হোসেন বলেন, হামলার ঘটনা গজেনে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি,পরে কি হয়েছে জানিনা। ভুক্তভোগী অভিযোগ দিলে বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ