২০শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

রাঙ্গাবালীতে বিয়ে বাড়িতে গেট ধরা নিয়ে বর ও কনেপক্ষের সংঘর্ষ, ভিডিও ভাইরাল

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

পটুয়াখালী প্রতিনিধি :: পটুয়াখালী রাঙ্গাবালীতে বিয়ে বাড়িতে গেট ধরা নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়েছেন বর ও কনে পক্ষের স্বজনেরা। শুক্রবার বিকেলে উপজেলার বড়বাইশদিয়া ইউনিয়নের মধুখালী গ্রামের এই সংঘর্ষে উভয়পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে। এই ঘটনায় একটি ভিডিও চিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে।

বরের বড় ভাই আলমগীর হোসেন স্থানীয় সাংবাদিকদের জানান, সপ্তাহ দুয়েক আগে তার ভাই বাবুল ফকির ওরফে সোয়েবের সঙ্গে পাশের মৌডুবি ইউনিয়নের মাঝের দেওর গ্রামের অনামিকা আক্তারের বিয়ে হয়। গত বুধবার বরপক্ষ গিয়ে কনেকে তাদের বাড়িতে আনেন। আজ শুক্রবার (০৬ জুন) কনের বাড়ির লোকজন আসে বরের বাড়িতে।

আলমগীর অভিযোগ করেন, বুধবার কনের বাড়ির গেটে তাদের ২ হাজার টাকা দিতে হয়েছে। শুক্রবার তারাও সেই পরিমাণ টাকা আশা করলেও পেয়েছেন ১ হাজার ৮০০ টাকা। ফেরার সময় তাদের আরও টাকা দেওয়া হবে বলে আশ্বস্ত করা হয়। সেই কথা অনুযায়ী খাওয়া-দাওয়া শেষে কনে নিয়ে ফেরার পথে বরের বাড়ির লোকজন আবার তাদের গেট আটকায়। সেখানে কথাকাটাকাটি থেকে শুরু হয় সংঘর্ষ এবং উভয়পক্ষের লোকই লাঠিসোটা নিয়ে এক অপরকে ধাওয়া দেন।

সেখানে উপস্থিত ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য সোনা মিয়া জানান, কনেযাত্রীর ৩০ জন আসার কথা থাকলেও এসেছিল ৫৪ জন। এ নিয়ে বরপক্ষ এমনিতেই মনক্ষুণ্ন ছিল। তারপর গেট ধরায় প্রত্যাশা অনুযায়ী টাকা না পেয়ে শুরু হয় সংঘর্ষ। শেষে নিজেদের ভুল বোঝাবুঝির মীমাংসা হয়। বর ও কনেকে নিয়ে কনেযাত্রী বাড়ি ফিরেছেন।

বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেওয়ান জগলুল হাসান বলেন, ‘লোকমুখে ঘটনা শুনেছি। তবে কোনো পক্ষই থানায় অভিযোগ করেনি।’

সর্বশেষ