১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
ঈদের নামাজের গুরুত্বপূর্ণ মাসয়ালা ঘুমের মধ্যে স্ট্রোক করে তরুণ সাংবাদিকের মৃত্যু! বরিশালের বিমান বন্দরে পাওনা টাকা চাওয়ায় যুবককে মারধর।। শেবাচিম হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি হলেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী বৃক্ষ রোপন ও চারা বিতরণীর কর্মসূচী উদ্বোধন করেন প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক মুলাদীতে ডোবা থেকে ছাগল ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার গৌরনদীতে চাঁদা না পেয়ে আওয়ামী লীগ নেতার নেতৃত্বে হামলা, ব্যবসায়ী আহত ৩ হাজার নেতাকর্মীদের আপ্যায়ন করালেন প্রতিমন্ত্রী মহিববুর রহমান ঈদযাত্রা নিরাপদ করতে বরিশাল নদী বন্দরে সরব কোস্টগার্ড ভোলায় মাদক প্রবেশ রোধ ও যাত্রীদের নিরাপত্তায় লঞ্চে তল্লাশি

রাজাপুরে স্কুলছাত্রীকে গোসলখানায় জোরপূর্বক ধর্ষণঃ প্রতিবাদে মানববন্ধন

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

রাজাপুর প্রতিনিধি: ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার চাড়াখালী এমএল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেনির ছাত্রী (১৪) কে জোড়পূর্বক ধর্ষনের প্রতিবাদ ও মামলার আসামিকে দ্রুত গ্রেফতার ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) সকাল ১১ টার দিকে উপজেলার গালুয়া পাকাপুল এলাকায় এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন। সচেতন এলাকাবাসীর আয়োজনে আধাঘন্টা ব্যাপী এ মানববন্ধন কর্মসূচিতে প্রায় শতাদিক মানুষ অংশগ্রহন করেন। এসময় বক্তব্য রাখেন স্থানীয় ইউপি সদস্য সামিরা আক্তার, সাবেক ইউপি সদস্য ফারুক হোসেন, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সহ সভাপতি বাপ্পি মিয়া। বক্তারা এহেন ন্যাক্কার জনক ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং মামলার আসামীকে দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে উপযুক্ত শাস্তির দাবি করেন। তারা আরও জানান, মামলার আসামী জামাল হোসেন দিবালোকে প্রকাশ্যে গুরে বেড়াচ্ছেন। পুলিশ বিভিন্ন অযুহাত দেখিয়ে আসামিকে গ্রেফতার করছে না।
উল্লেখ্য, গত ৩১ মে দুপুরে উপজেলার বড় গালুয়া এলাকার আ: বারেক হাওলাদারের মেয়ে ও চাড়াখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেনির শিক্ষার্থী (১৪) কে একই এলাকার মৃত. হোসেন হাওলাদারের ছেলে ৩ সন্তানের জনক জামাল হোসেন জোড় পূর্বক ধর্ষন করে। এ ঘটনায় জামাল হোসেন স্কুল ছাত্রীকে ভয়ভীতি দেখালে বিষয়টি গোপন থাকলেও পরবর্তীতে জানাজানি হয়ে গেলে স্থানীয়দের সহযোগিতায় স্কুল শিক্ষার্থীর বড় বোন শিরিন আক্তার বাদী হয়ে জামাল হোসেন নামে রাজাপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। যাহার মামলা নাম্বার ১০।

এ বিষয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই শরীফ আব্দুল মান্নান বলেন, আসামি গ্রেফতার করতে কয়েক বার অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। আসামি এলাকার বাহিরে গা ডাকা দিয়েছে। তাকে দ্রুত গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সর্বশেষ