১৭ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

সরকার রাষ্ট্রীয় যন্ত্রকে ব্যবহার করে জনগনের ভোটাধীকার কেড়ে নিয়েছে : সরোয়ার

শামীম আহমেদ :: বিএনপি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির যুগ্ম মহাসচিব মজিবর রহমান সরোয়ার বলেছেন, সরকার সকল নির্বাচনে রাষ্ট্রীয় যন্ত্রকে ব্যবহার করার মাধ্যমে জনগনের ভোটাধীকার কেড়ে নিয়েছে। লাখো শহীদের রক্তের বিনিময়ে অর্জিত গণতন্ত্রকে স্থানীয় সরকার নির্বাচনে ধ্বংস করে দিয়েছে। ৭৪ সালে দেশে গণতন্ত্র ছিল না বলেই দূর্ভিক্ষ হয়ে ছিল। এখন দেশে গণতন্ত্র নেই বলে সারাদেশে গুম, খুন ও দূর্নীতি সর্বত্র বিরাজ করছে।

তিনি আরো বলেন, একদিকে সরকার সংসদে শক্তিশালী বিরোধী দলের কথা বলছে অন্যদিকে আমরা বিরোধী দলের নেতা কর্মীদের দাড়াতে না দিয়ে হাত-পা বেধে রেখেছে।
আমরা বিরোধী দলের দায়ীত্ব পালন করার মাধ্যমে সরকারকে সহযোগীতা করতে চাই সেই কাজটিও করার কোন পদ তৈরী করছেন না। আজ দেশে কোন জবাবদিহীতা নাই বলে দেশে কেহ মুখ খুলে কথা পর্যন্ত বলতে পারছে না। এছাড়া সরকার এখন বৈজ্ঞানিক পদ্ধতি ব্যবহারের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার নির্বাচনেও তারা ভোট কারচুপি করে সাধারন জনগণকে হাইকোর্ট দেখাচ্ছে।

আজ মঙ্গবার (১৬ ফেব্রয়ারী) সকাল সাড়ে ১১টায় সদররোডস্থ জেলা ও মহানগর বিএনপি দলীয় কার্যালয়ে দেশব্যাপী নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবীতে বিগত সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র প্রার্থীদের নেতৃত্বে আগামী ১৮ই ফেব্রয়ারী বরিশাল মহানগর বিএনপির আয়োজনে বিক্ষোভ সমাবেশ সফল করার লক্ষে গণমাধ্যম কর্মীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় তিনি একথাগুলো বলেন।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক সংসদ সদস্য বরিশাল উত্তর জেলা বিএনপি সভাপতি মেজবা উদ্দিন ফরহাদ, বরিশাল মঞানগর বিএনপি ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক জিয়া উদ্দিন সিকদার, বরিশাল উত্তর জেলা বিএনপি সাংগঠনিক সম্পাদক ও মুলাদী উপজেলা বিএনপি সভাপতি আঃ ছত্তার খান, উত্তর জেলা বিএনপি সহ-সভাপতি সৈয়দ রফিকুল ইসলাম লাবু সহ ঝালকাঠী জেলা বিএনপি সদস্য সচিব এ্যাড. শাহাদৎ হোসেন সহ বিভিন্ন নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

এসময় সরোয়ার আরো বলেন, আমরা এখানে সারাদেশের ন্যায় বরিশাল মহানগর বিএনপি’র আয়োজনে শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করতে চাই। আশা রাখি সরকারের পক্ষ আমাদের সহযোগীতা করবেন। যদিও আমাদের পক্ষ থেকে সমাবেশ করার জন্য অনুমতি চেয়েছি এখন পর্যন্ত আমাদের কিছু বলেননি প্রশাসনের পক্ষ থেকে।

এছাড়াও তিনি গণমাধ্যম কর্মীদের এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, এই সমাবেশের মাধ্যমে আমাদের চেয়ারপার্সন দেশনেত্রী সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির সকল নেতা কর্মীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা সকল মামলা এ সমাবেশ থেকে প্রত্যাহারের দাবী জানানো হবে।

পরে তিনি দলীয় নেতা কর্মীদের নিয়ে ১৮ তারিখের বরিশাল বিভাগীয় সমাবেশ সফল করার লক্ষে নগরীর বিভিন্ন সড়কে প্রচার-প্রচারনা লিফলেট বিতরণ করেন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ