১১ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

সরিকলে স্কুল ছাত্রীকে উত্যক্তের অভিযোগ। ক্ষিপ্ত হয়ে বখাটেরা ছাত্রীর রান্না ঘরে আগুন

গৌরনদী প্রতিনিধি ।। বরিশালের গৌরনদী উপজেলার সরিকল ইউনিয়নের সাকোকাঠী গ্রামের অষ্টম শ্রেনীর এক ছাত্রীকে (১৪) উত্যক্ত করে আসছিল স্থানীয় বখাটেরা। এর প্রতিবাদ করায় ও পুলিশের কাছে াভিযোগ দেয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে বখাটেরা সোমবার দুপুরে স্কুল ছাত্রীর রান্না ঘরে আগুন দিয়ে আতংক সৃষ্টি করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় সোমবার স্কুল ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে তিন জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনমা ৩/৪ জনকে আসামি করে সরিকল পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে একটি মামলা দায়ের করেছে।

স্থানীয় লোকজন, স্কুল ছাত্রীর পরিবার ও পুলিশ জানায়, গৌরনদী উপজেলার সরিকল ইউনিয়নের সাকোকাঠী গ্রামের একটি ফল আড়তের ব্যবস্থাপকের কন্যা আগরপুর আলতাফ মেমোরিয়াল হাইস্কুলের অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রীকে (১৪) উত্যক্ত করে আসছিল উপজেলার চরহোগলদিয়া গ্রামের বাহার সিকদারের পুত্র, রেস্টুরেন্ট কর্মচারী সফিক সিকদার (১৮) তার সহযোগী উপজেলার মহিষা গ্রামের সেলুন কর্মচারী উত্তম দাস (১৯) ও সাকোকাঠী গ্রামের লক্ষন দাসের পুত্র জয় দাস (১৮)। স্কুল ছাত্রীর বাবা অভিযোগ করে বলেন, গত ৩/৪ মাস ধরে বখাটে সফিক সিকদার, উত্তম দাস ও জয় দাসসহ ৩/৪ জন সন্ত্রাসী স্কুলে থেকে প্রাইভেট পড়ে বাড়িতে আসা যাওয়ার পথে আমার মেয়েকে উত্যক্ত করে আসছিল। বিষয়টি বখাটেদের পরিবারের কাছে অভিযোগ করলে গত জুন মাসে বখাটেরা মেয়েকে পথরোধ করে মুঠোফোনে জোরপূর্বক ছবি তুলে। যদি বখাটের কথামত সফিকের প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হয় তাহলে ওই ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ও ইন্টানেটে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দেয় এবং তাতেও যদি রাজি না হয় তাহলে মেয়েকে অপহরন ও এসিড নিক্ষেপের হুমকি দেয়।

স্কুল ছাত্রীর বাবা আরো বলেন, হুমকির পরে ভয়ে গত ২ জুন মেয়েকে আমার বোনের বাড়ি বরিশাল পাঠিয়ে দেই। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে বখাটেরা প্রতি রাতে আমার ঘরের চালায় ইট পাটকেল নিক্ষেপ করে। বিষয়টি স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিদের কাছে নালিশ দেয়ার পরে তাদের আশ্বাসে এক মাস পরে গত শুক্রবার মেয়েকে বাড়িতে ফিরিয়ে আনি। বাড়িতে ফিরিয়ে আনার পর থেকে বখাটে সফিক সিকদার ও তার সহযোগীরা আমার, আমার স্ত্রী ও ছেলের মুঠোফোনে ফোন দিয়ে বিভিন্ন ভয়ভীতি দেখিয়ে হুমকি দেয়। শনিবার রাতে বখাটেরা আমার বাড়িতে গিয়ে ঘরে ঢুকতে না পেরে ঘরের দরজা, জানালা ও বেড়া পিটিয়ে এবং রান্না ঘরের সবগুলো চুলা ভেঙ্গে দেয়। আমি রোববার সরিকল পুলিশ তন্ত কেন্দ্রে গিয়ে বিষয়টি লিখিতভাবে অভিযোগ করি । এতে বখাটেরা আরো ক্ষিপ্ত হয়ে বখাটে সফিক সিকদার, উত্তম ও জয় দাসসহ ৩/৪ জন সন্ত্রাসী সোমবার দুপুরে আনুমানিক ১২টার দিকে আমার বাড়িতে গিয়ে রান্নাঘরে আগুন দিয়ে পালিয়ে যায়। আগুনে আমার রান্না ঘরের আংশিক অংশ পুড়ে যায়। এ সময় আমার ডাক চিৎকারে গ্রামের লোকজন এসে আগুন নিভিয়ে ফেলে।

অভিযোগের ব্যাপারে জানতে বখাটেদের ফোন করে তাদের মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া যায়। স্থানীয়রা জানান, ঘটনার পর থেকে বখাটেরা গা ঢাকা দিয়েছে। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সরিকল পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (পরিদর্শক) মোঃ ফোরকান আহম্মেদ বলেন, স্কুল ছাত্রীর বাবার বাড়িতে লাকরীর ঘরে শুক্রবার দুপুরে আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। মেয়েকে উত্যক্ত ও আগুনের ঘটনায় স্কুল ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে বখাটে সফিক সিকদার (১৮) তার সহযোগী উত্তম দাস (১৯) ও জয় দাসের (১৮) নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরো ৩/৪ জনকে আসামি করে সোমবার একটি মামলা দায়ের করেছে। বখাটেদের গ্রেপ্তারপূর্বক তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ