২৪শে মার্চ, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
গণহত্যা দিবস উপলক্ষ্যে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের নানা কর্মসূচি ঝালকাঠির ডিসির গাড়িতে ট্রাকের ধাক্কা, কারাগারে চালক পটুয়াখালীতে চাঞ্চল্যকর জোড়া খুনের ঘটনায় গ্রেপ্তার ২ বরিশালে রমজানের প্রথম দিনে নিত্যপণ্যের বাজারে উত্তাপ মঠবাড়িয়ার অপহৃতা কিশোরীকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব : অপহরণকারী যুবক গ্রেপ্তার স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার লক্ষে আমতলীতে ১৩৮টি প্রথমিক বিদ্যালয়ে ল্যাপটপ বিতরণ পায়রা নদীর ভাঙ্গন থেকে আমতলীকে রক্ষায় ৭৫১ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত প্রকল্পের উদ্বোধন কলাপাড়ায় জেলেদের চাল নিয়ে ইউপি মেম্বারদের চালবাজি স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর সাথে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল ডিপ্লোমা প্রকৌশলী সমিতির নেতৃবৃন্দের সাক্ষাৎ বাকেরগঞ্জে ট্রাফিক পুলিশকে ঘুস দিতে গিয়ে বিপাকে অটোচালক, ভিডিও ভাইরাল

২ বছরের বিদ্যুৎ বিল বকেয়াঃ ইউনিয়ন পরিষদের সংযোগ বিচ্ছিন্ন !

রাজাপুর (ঝালকাঠি) প্রতিনিধি: দীর্ঘ ২ বছর যাবৎ বিদ্যুৎ বিল বকেয়া থাকায় ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার শুক্তাগড় ইউনিয়ন পরিষদে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছে বিদ্যুৎ বিভাগ। এতে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে পরিষদে সেবা নিতে আসা স্থানীয় নাগরিকদের। সূত্র জানায়, বিদ্যুৎ বিভাগ বকেয়া বিল আদায়ের জন্য মাইকিং সহ বিভিন্ন সময়ে নোটিশ দিয়েছেন কিন্তু ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের গাফেলতির কারণে তাদের বিল পরিশোধ করা হয়নি। পরিষদে প্রায় ত্রিশ হাজার টাকা পাওনা থাকায় বিদ্যুৎ বিভাগ গত ১ সপ্তাহ আগে পরিষদের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করেন। বিদ্যুৎ বিহীন পরিষদ এতোদিন অতিবাহিত হলেও পূর্নরায় বিদ্যুৎ সংযোগ আনতে নেই কোন উদ্যোগ।
পরিষদে সেবা নিতে আসা লিটন, গৌতম, লাবলী, রিজিয়া বেগম, কামাল ও ফোরকান জানান, তারা তিন চার দিন পর্যন্ত জন্ম সনদ নেওয়ার জন্য পরিষদে আসেন কিন্তু বিদ্যুৎ না আসা পর্যন্ত দিতে পারবে না বলে ছাফ জানিয়ে দেন এবং উদ্দ্যোক্তা শামিম বলেন, সার্ভারে খুব সমস্যা।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পরিষদে কর্মরত এক ব্যক্তি বলেন, এই তীব্র তাবদাহে পরিষদে বসে অফিস করা খুবই কষ্ট হচ্ছে।
রাজাপুর বিদ্যুৎ বিভাগের এক কর্মকর্তা জানান, ইউনিয়ন পরিষদের লাইন এর আগেও দু’বার বিচ্ছন্ন করা হয়েছিল তখন ইউপি চেয়ারম্যান মজিবুল হক মৃধা কিছু টাকা পরিশোধ করে এবং মুচলেখা দিয়ে পূর্নরায় সংযোগ নিয়েছিলো। তার পরে আবার প্রায় ২ বছর বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করেননি। বর্তমানে তাদের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন রয়েছে।
ইউপি চেয়ারম্যান মো. মজিবুল হক মৃধা বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্নর বিষয়ে সত্বতা স্বীকার করে বলেন, “পরিষদে হোল্ডিং ট্যাক্স (চৌকিদারী ট্যাক্স) ঠিকমতো উঠেনা বিদায় বিদ্যুৎ বিল দিতে পারিনি। খুব শীঘ্রই তাদের পাওনা টাকা পরিশোধ করে লাইন চালু করব।”

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ