১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
আমি বাচতে চাই, দয়া করে আমাকে বাঁচান- শিশু ইউসুফ এবার ভোল পাল্টালেন হাফিজুর রহমান সিদ্দিকী পিরোজপুরে আন্তঃ গরু চোর দলের ৪ সদস্য গ্রেফতার চল্লিশ কাহনিয়া প্রবাসী কল্যাণ সমিতির মানবিক কাজে মুগ্ধ গ্রামবাসী বরিশালে বাস-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে ২ কিশোর নিহত পটুয়াখালীতে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে ঢুকে ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ অধ্যক্ষ নজরুল ইসলামের ২৯তম মৃত্যুবার্ষিকীতে এসটিএস হাসপাতালের ২ দিন ব্যাপী ফ্রী মেডিকেল ক্যাম্প করোনায় আরও ৩৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১ হাজার ৯০৭ ভোলায় মহানবী (সা.)-কে নিয়ে কটূক্তি, পূজা পরিষদের সভাপতি আটক ইন্দুরকানীতে নয় বছরেও সেতুতে নেই ল্যাম্পপোষ্ট, পথচারীদের ভোগান্তি

লকডাউনে কঠোর অবস্থানে বরিশাল প্রশাসন, পেটের তাগিদে রাস্তায় নিম্ন শ্রেনীর মানুষ ( ভিডিওসহ)

রিপোর্ট এম সাইফুল ইসলাম (রাজু)
পহেলা জুলাই থেকে শুরু হওয়া ৭দিনের লকডাউনের প্রথম দিন আজ। লকডাউন ঘোষনা হওয়ার পরপরই বন্ধ রয়েছে বরিশাল শহরের দোকানপাট, মার্কেট, রেষ্টুরেন্টসহ নানা যানবাহন। সরকার ঘোষিত লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর অবস্থানে রয়েছে বরিশাল প্রশাসনের সকল ইউনিট।

সম্মলিত ভাবে যার যার অবস্থান থেকে করোনা সংক্রমন রোধে জনগনকে সচেতন করে যাচ্ছে। এদিকে লকডাউন ঘোষনা হওয়ায় বেশি বিপদে পড়েছে খেটে খাওয়া মানুষ। তারা পেটের তাগিদে কেউ রিকসা অথবা অন্য কাজের খোঁজে বের হয়েছে। যানবাহন চলাচল না থাকায় অফিসে যেতে হিমসিম খাচ্ছে বিভিন্ন প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানের কর্মচারীরা।  কেউবা আবার রাস্তার সারিবদ্ধ ভাবে কমদামে চাল কেনার জন্য ভির জমিয়েছে। এদিকে চাকরি বাঁচাতে দুরদুরান্ত থেকে পায়ে হেটে অফিসে যাচ্ছে অনেকে। বাঁধার সম্মুখিন হচ্ছে রাস্তার মোড়ে মোড়ে।
পথচারী রুস্তুম জানান, আমি যেখানে কাজ করি সেখানে যোগদান না করলে বেতন পাবো না। তাই পায়ে হেটে কর্মস্থলে যেতে হচ্ছে। কাজ হোক বা না হোক উপস্থিত থাকতে হবে। তা না হলে সংসার চালাতে কষ্ট হবে।
এদিকে রিক্সাচালক আজিম বলেন, পেটের দায়ে রিক্সা নিয়ে রাস্তায় নেমেছি। কিন্তু পুলিশ স্যারেরা আমাদের রিক্সা আটক রাখছে। অনেক সময় রিকসার চাকা ফুটো করে দিচ্ছে। কিন্তু আমরা যদি রিকশা নিয়ে না নামি তাহলে খাবো কি। তাছাড়া অনেক ডাক্তারাও তাদের গাড়ি বের না করে আমাদেও রিকসায় যায়। এদিক থেকে আমরাও তো দেশের সেবা দিয়ে যাচ্ছি।
ঢাকা থেকে দক্ষিণাঞ্চলে আসা আরিফ জানান, ঢাকায় একটা কোম্পানিতে চাকরি করতাম। লকডাউন দেয়ার কারনে মালিক বাড়ি চলে যেতে বলেছে। তাই অনেক কষ্ট করে ঢাকা থেকে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে গলাচিপা যাচ্ছি। বলতে গেলে ঢাকা থেকে বরিশাল আসতে অর্ধেক রাস্তা পায়ে হেটেই এসেছি।
এদিকে প্রশাসনের এক কর্মকর্তার সাথে লকডাউন পরিস্থিতি নিয়ে আলাপকালে তিনি জানান, আগামী ৭দিন করোনা সংক্রমন রোধে যে লকডাউন দেয়া হয়েছে তা যথাযথ ভাবে পালন করে যাচ্ছি। মাঝে মাঝে বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করতে দেখা গেলে তাদের আটক করে শাস্তি দেয়া হচ্ছে। কিন্তু প্রমান সাপেক্ষে কোন রোগী, জরুরি প্রয়োজন কিংবা স্বাস্থ্যখাতের সকল কর্মকর্তা বা কর্মচারীদের তাদের অফিসে যাওয়ার জন্য সাহায্য করছি। একান্ত প্রয়োজন ছাড়া যাতে মানুষ বাসার বাইরে বের হতে না পারে তার জন্য কঠোর অবস্থানে রয়েছে বরিশাল প্রশাসন।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ