৬ই জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

আল্লাহ অসন্তুষ্ট হওয়ায় করোনায় দেশে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা অনেক বেশী

শামীম আহমেদ ::দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো খুলে দেয়ার দাবী করেছেন চরমোনাই পীরের দল ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ। দলটির নায়েবে আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম রোববার বিকালে বরিশালে এক সংবাদ সম্মেলনে এ দাবী জানান। নগরীর চাঁদমারীতে ইসলামী আন্দোলনের দলীয় কার্যালয়ে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। ঈদের পরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়া না হলে বড় আন্দোলন গড়ে তোলা হবে জানিযেছেন মুফতি সৈয়দ মোহাম্মদ ফয়জুল করীম।

করোনা সংক্রামনে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘একটি মূর্খ্য জাতি সৃষ্টির চেয়ে করোনায় মৃত্যুবরন করা শ্রেয়’। শিশুরা খেলার মাঠ, হাট-বাজার সর্বত্র যেতে পারলেও তাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে একটি মূর্খ্য জাতি সৃস্টি করার একটি দুরবন্ধিমুলক উদ্দেশ্যে রয়েছে সরকারের।

দেশের মাদ্রাসাগুলো বন্ধ করে দেয়ায় সেখানে কোরআন তেলওয়াত-দোয়া হচ্ছেনা। এ কারনে আল্লাহ অসন্তুষ্ট হওয়ায় করোনার তৃতীয় ঢেউয়ে দেশে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা অনেক বেশী বলে মনে করেন মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম।

তিনি বলেন, গত কয়েকমাসে অনেক নীরিহ আলেম-ওলামাদের সরকার গ্রেফতার করে কারাবন্দী করেছে। তাদের নি:শর্ত মুক্তি দাবী জানানো হয় সংবাদ সম্মেলনে।

ফয়জুল করীম বলেন, স্বাস্থ্যখাতে লুটপাটের কারনে দেশে চিকিৎসা ব্যবস্থা ভেঙ্গে পড়েছে। হাসপাতালে এসে রোগীরা বিনা চিকিৎসায় মারা যাচ্ছেন। স্বাস্থ্য খাতে দূর্ণীতিবাজদের বিরুদ্ধে সরকার কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না।

তিনি বলেন, গতবছর করোনাভাইরাস সংক্রামন শুরুর পর ‘চরমোনাই ভলান্টিয়ার সার্ভিস টিম’ গঠন করে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নেতাকর্মীরা করোনায় আক্রান্তদের চিকিৎসা ও খাদ্য সহায়তা দিচ্ছে। চাহিদা অনুযায়ী রোগীদের বাড়িতে অক্সিজেন পৌছে দিচ্ছে। মৃতদের দাফন এমনকি হিন্দু ধর্মালম্বীদের সৎকার করে দিচ্ছে ইসলামী আন্দোলনের নেতাকর্মীরা।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ইসলামী আন্দোলনের নেতা সৈয়দ নাসির আহমেদ কাওছার, মাওলানা জাকারিয়া হামিদী, মাওলানা লুৎফর রহমান, আবদুল্লাহ আল মামুন টিটু প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ