১৭ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
সপরিবারে মানবেতর জীবন যাপন করছেন ঐতিহ্যবাহী এ.কে স্কুলের প্রধান শিক্ষক চরমোনাই পীর, ভিপি নুর ও ড.কামালকে দালাল হিসেবে ব্যবহার করছে সরকার চরফ্যাসনে আলোকিত সকাল পত্রিকার ৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন পটুয়াখালী প্রেসক্লাবের অর্ধ বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত চরফ্যাসনে আলোকিত সকাল পত্রিকার ৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন খুলনার তরুণীকে কুয়াকাটায় আবাসিক হোটেলে আটকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ১ শেখ রাসেল দিবস উদযাপন উপলক্ষে বাবুগঞ্জে প্রস্ততি সভা অনুষ্ঠিত বাবুগঞ্জে খাদ্য দিবস উপলক্ষে অলোচনা সভা অনুষ্ঠিত সারাদেশে আরও ১৮৩ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি কোরআন সম্পর্কে অশালীন ও কুৎসিত পোষ্টঃ গৌরনদীতে ‘মহানন্দ বাড়ৈ’ আটক

পটুয়াখালীতে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে ঢুকে ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক ::: পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় আল-দ্বীন ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড ম্যান পাওয়ার কোম্পানির অফিস রুমে ঢুকে আসবাবপত্র ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় কোম্পানীর সুপারভাইজার শরীফুল ইসলামকে অকথ্য ভাষায় গালাগাল ও বাড়াবাড়ি করলে ব্যবসা করতে দেবেনা বলে হুমকিও দিয়েছে সন্ত্রাসী বাহিনী। এ বিষয়ে কলাপাড়া থানায় লিখিত অভিযোগ দিলেও তা গ্রহণ করেনি পুলিশ এমনটাই অভিযোগ সুপারভাইজার শরীফুলের।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ৮ টার দিকে উপজেলার ধানখালী ইউনিয়নের সােমবারিয়া বাজার সংলগ্ন আল-দ্বীন ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড ম্যান পাওয়ার কোম্পানির অফিস রুমে এ ঘটনা ঘটে।

অভিযুক্তরা হলেন- ধানখালী ইউনিয়নের পাঁচজুনিয়া গ্রামের বাসিন্দা আতাউর রহমান মিলনের ছেলে মাে: সজল (৩৮), একই গ্রামের সাজা খা’র ছেলে মাে: শাহিন (৩৫)।

জানা গেছে- অভিযুক্ত মাে: শাহিন কলাপাড়ার পাঁচজুনিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের আল-দ্বীন ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেডের ম্যান পাওয়ার কোম্পানীর বয় হিসাবে কর্মরত ছিল। কর্মরত থাকালীন তিনি বিভিন্ন অনিয়মে জড়িয়ে পড়ায় তাকে চাকুরী থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়। এদিকে এর আগে মাে: সজল ক্ষমতার অপব্যবহার করে ওই কোম্পানীর মােটরসাইকেল জোরপূর্বক ব্যবহার করতো। এতে সুপারভাইজার শরীফুল প্রতিবাদ করলে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। পরে বৃহস্পতিবার রাত ৮ টার দিকে আল-দ্বীন ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড কোম্পানির অফিসের মধ্যে ঢুকে মাে: সজল ও মো: শাহিনসহ ১০/১২ জনের একটি সন্ত্রাসী দল আসবাবপত্র ভাংচুর করে ও লুটপাট চালায়। এতে ৫০ হাজার টাকার ক্ষতি হয়েছে। এসময় কোম্পানীর সুপারভাইজার শরীফুল ইসলামকে অকথ্য ভাষায় গালাগাল ও বাড়াবাড়ি করলে ব্যবসা করতে দেবেনা বলে হুমকি দিয়ে চলে যায় তারা।

কোম্পানীর সুপারভাইজার শরীফুল ইসলাম জানান- মাে: সজল ও মো: শাহিনসহ ১০/১২ জনের একটি সন্ত্রাসী দল অসিফে ঢুকে আসবাবপত্র ভাংচুর করে ও লুটপাট চালায়। এবং আমাকে অকথ্য ভাষায় গালাগাল ও হুমকি দেয়। তাৎক্ষনিক আমি কলাপাড়া থানায় গিয়ে অভিযোগ দিলে পুলিশ তা গ্রহণ করেনি।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়- সজল দীর্ঘদিন স্থানীয় প্রভাবশালীদের মদদে নানা অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে। প্রভাবশালীদের ছত্রছায়ায় থাকার কারণে তার বিরুদ্ধে কেউ মুখ খুলতে সাহস পায় না।

এ বিষয়ে অভিযুক্তদের সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে কলাপড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন- বিষয়টি শুনেছি। পুলিশ পাঠিয়েছি, তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

কেন অভিযোগ গ্রহণ করা হলো না এমন প্রশ্নের জবাবে ওসি বলেন- যেহেতু পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে বিষয়টি তদন্তের মাধ্যমেই অভিযোগ গ্রহণ করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

সর্বশেষ