১৫ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
২ দিনও থাকা হলো না নতুন ঘরে, আগু/নে পুড়ে ছাই বসতঘর মুলাদীতে আড়িয়াল খাঁ নদে গোসল করতে নেমে ২ তরুণী নিখোঁজ বাকেরগঞ্জে বসতঘরে মিলল মাটিচাপা অবস্থায় বৃদ্ধার মরদেহ চরফ্যাসনে মাদক সেবনে বাধা দেয়ায় সাংবাদিক পরিবারের ওপর হামলা, আহত ৪ তালতলীতে বনের ২৫০ পিস লাঠি সহ গ্রেফতার ২ দুমকিতে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে গাড়ি ভাঙচুর, থানায় অভিযোগ বৈশাখ উদযাপনে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে পর্যটকের পদচারণায় মুখরিত বাদলপাড়া একতা গোরস্থানে চিরনিদ্রায় সায়িত সাংবাদিক মামুনের ‘মা’ মাদক সেবনে বাধা দেয়ায় - দুলারহাটে সাংবাদিক পরিবারের ওপর হামলা আহত-৪ বরিশাল শেবাচিমের প্রিজন সেলে আসামিকে পিটিয়ে হত্যা

মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি মঠবাড়িয়া বিএনপির

শেয়ার করুনঃ

Share on facebook
Facebook
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email

বাণী ডেস্ক: পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় দুই সৌদি প্রবাসীসহ দেড়শ বিএনপি নেতাকর্মীর নামে বিস্ফারক আইনে মামলা হয়েছে। গত রোববার (০৪ ডিসেম্বর) উপজেলা যুবলীগের সহ সভাপতি মোল্লা আবুল কালাম আজাদ বাদী হয়ে মঠবাড়িয়া থানায় মামলাটি দায়ের করেন।
দায়ের হওয়া মামলা সূত্র জানা গেছে, গত শনিবার (০৩ ডিসেম্বর) রাত ৩টার দিকে অভিযোগকারীসহ পাঁচজন উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে বসে বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখছিলেন। এ সময় হঠাৎ অভিযুক্তরাসহ বিএনপি-জামায়াতের নেতাকর্মীরা উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও অভিযোগকারীসহ সেখানে থাকাদের হত্যার উদ্দেশ্যে বোমা নিক্ষেপ করেন। এসময় হামলায় তারা আহত হন।
এদিকে মামলাটিকে মিথ্যা ও গায়েবি অভিযোগ করে সোমবার (০৫ ডিসেম্বর) সকালে জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যক্ষ মো. আলমগীর হোসেন তার নিজ বাসভবনে সংবাদ সম্মেলন করেন। ওই সংবাদ সম্মেলনে জেলার নাজিরপুর উপজেলা বিএনপির নেতাকর্মীদের নামে দায়ের হওয়া মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারসহ ওই উপজেলা ছাত্রদলের সাবেক আহ্বায়ক এসএম মাজেদুল কবির রাসেলের মুক্তি দাবি করেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সদস্য সচীব গাজী অহিদুজ্জামান লাভলু, যুগ্ম আহ্বায়ক মো. রিয়াজ উদ্দিন রানা।
জানা গেছে, মঠবাড়িয়ায় দায়ের হওয়া ওই মামলায় ১০১ জনকে নামীয় এবং ৪০-৫০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। ওই মালায় আসামি (১৬ নম্বর) হিসেবে থাকা মঠবাড়িয়া পৌর শহরের থানা পাড়া এলাকার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের মো. সামসু মিয়ার ছেলে মো. জুয়েল (২৯) এবং একই এলাকার মৃত মোসলেম সরদারের ছেলে মো. নান্টু মিয়া (২১) সৌদি প্রবাসী বলে পরিবারের পক্ষ থেকে জানা গেছে।
ওই মামলার ১৭ নম্বর আসামি সৌদি প্রবাসী নান্টু মিয়া জানান, তিনি গত সাড়ে ৭ বছর ধরে সৌদিতে আছেন। মামলার ১৬ নম্বর আসামি মো. জুয়েল জানান, গত প্রায় ৯ বছর ধরে তিনি সৌদিতে আছেন।
ওই মামলার বাদী উপজেলা যুবলীগের সহ সভাপতি মোল্লা আবুল কালাম আজাদের কাছে মোবাইলে কল করে জানতে চাওয়া হয় মামলার ১৬ ও ১৭ নম্বর আসামি সৌদি প্রবাসী। তারা কিভাবে বোমা হামলার সঙ্গে জড়িত। এ প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, তারা সৌদি প্রবাসী হলেও এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত আছেন। কারণ সেখানে বসে তারা আমাকে হুমকি দিয়ে ক্ষুদে বার্তা পাঠিয়েছে।
উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মো. রুহুল আমীন দুলাল বলেন, মামলাটি গায়েবি মামলা। আন্দোলন থামাতে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বিএনপির নেতাকর্মীদের নামে সারাদেশের মত মঠবাড়িয়ায় মিথ্যা মামলা দেওয়া হয়েছে।
মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান তালুকদার জানান, মামলাটি পুলিশের পক্ষ থেকে করা হয়নি। মামলাটির বাদী উপজেলা যুবলীগের নেতা মোল্লা আবুল কালাম আজাদ।

সর্বশেষ