বুধবার, ০৮ এপ্রিল ২০২০, ০৫:৪৬ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
১৫০ টাকায় মিলছে ১ মন কাচা মরিচ ববিতে জরুরি টেলি স্বাস্থ্য সেবা শুরু বরিশালে ন্যাড়া হওয়ার হিড়িক! বরিশালে ৫ দোকানিকে জরিমানা হিজলায় ১০০ মণ জাটকা ইলিশসহ বিভিন্ন প্রজাতির মাছ উদ্ধার, ট্রলার আটক পিরোজপুরের কাউখালীতে গরু জবাই করে মাংস বিক্রীর অভিযোগে সাবেক ইউপি সদস্যের জরিমানা শেবাচিমে ক‌রোনা পরীক্ষার পি‌সিআর ল্যাব চালু ২৪ ঘণ্টায় ৩ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত আরও ৫৪ জন পিরোজপুরের কাউখালীতে শিক্ষার্থীদের কাছে করোনা সচেতনতায় ইউএনওর চিঠি রোমানিয়ার হাসপাতালে ১০ নবজাতক করোনায় আক্রান্ত কাউখালীতে জেলেদের জালে ধরা পড়ল ৪’শ কেজি ওজনের শাপলাপাতা মাছ সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে কাউখালীর রূপালী ব্যাংকে বেতনের জন্য শিক্ষকদের লাইন বঙ্গবন্ধুর খুনি মাজেদের মৃত্যু পরোয়ানা জারি অসহায় মধ্যবিত্তঃ যারা ছবি তুলবেনা, তারা ত্রাণ পাবেনা ? বাবুগঞ্জে নিম্নআয়ের মানুষদের নাভিশ্বাস যুক্তরাষ্ট্রে একদিনে মৃত ১৯৭০, আক্রান্ত ছাড়ালো ৪ লাখ বানারীপাড়ায় রাস্তায় গাছ ফেলে লকডাউন করার চেষ্টা ওবায়দুল কাদেরকে বাসা থেকে বের হতে মানা করেছেন প্রধানমন্ত্রী তালতলীতে করোনায় গাড়ী চলাচলের অনুমোদনকৃত স্টীকার লাগিয়ে দিয়েছে পুলিশ আজকের কবিতা “দূর্ণীল খেয়াঘাট”
চিত্রনায়ক সালমান শাহ মৃত্যুর প্রতিবেদন ২ ফেব্রুয়ারি

চিত্রনায়ক সালমান শাহ মৃত্যুর প্রতিবেদন ২ ফেব্রুয়ারি

বাংলা সিনেমার ‘স্টাইল আইকন’ খ্যাত এক সময়কার তুমুল জনপ্রিয় চিত্রনায়ক সামলান শাহ অপমৃত্যুর মামলার অধিকতর তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ২ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করা হয়েছে।
রোববার মামলাটির প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু এ দিন তদন্ত সংস্থা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) তা দাখিল করেনি। এ জন্য ঢাকা মহানগর হাকিম বাকী বিল্লাহ তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের পরবর্তী ওই দিন ধার্য করেন।
মামলার বাদীপক্ষের আইনজীবী ফারুক আহাম্মদ  এ সব তথ্য জানিয়েছেন।
আদালত সূত্র জানায়, বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে তুঙ্গস্পর্শী জনপ্রিয়তার মধ্যে ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর রাজধানীর ইস্কাটন রোডে নিজের বাসা থেকে শাহরিয়ার চৌধুরী ইমন ওরফে সালমান শাহ’র লাশ উদ্ধার করা হয়। ওই সময় সালমানের মৃত্যুর ঘটনায় তার বাবা কমরউদ্দিন আহমদ চৌধুরী একটি অপমৃত্যুর মামলা করেন।
পরে ১৯৯৭ সালের ২৪ জুলাই সালমানকে হত্যা করা হয়েছে অভিযোগ করে মামলাটি হত্যা মামলায় রূপান্তরের আবেদন করা হয়। অপমৃত্যুর মামলার সঙ্গে হত্যাকাণ্ডের অভিযোগের বিষয়টি এক সঙ্গে তদন্ত করতে সিআইডিকে নির্দেশ দেন আদালত।
তদন্ত শেষে ১৯৯৭ সালের ৩ নভেম্বর আদালতে মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয় সিআইডি। সেখানে সালমান শাহ’র মৃত্যুকে আত্মহত্যা বলে উল্লেখ করা হয়। এরপর সিআইডির প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান করে রিভিশন মামলা করা হলে ২০০৩ সালের ১৯ মে মামলাটি বিচার বিভাগীয় তদন্তে পাঠান আদালত। ২০১৪ সালের ৩ আগস্ট বিচার বিভাগীয় তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করা হয়। সেখানেও সালমানের মৃত্যুকে অপমৃত্যু হিসেবে উল্লেখ করা হয়।
২০১৪ সালের ২১ ডিসেম্বর সালমান শাহ’র মা নীলা চৌধুরী বিচার বিভাগী তদন্ত প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান করেন এবং পরবর্তীকালে নারাজি আবেদন করেন। নারাজি আবেদনে আজিজ মোহাম্মদ ভাইসহ ১১ জন সালমান শাহ’র হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার কথা বলা হয়। আদালত নারাজি আবেদনটি মঞ্জুর করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নকে (র‌্যাব) মামলাটি অধিকতর তদন্তের নির্দেশ দেন।
এরপর মামলাটিতে র‌্যাবকে তদন্ত দেয়ার আদেশের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ ২০১৬ সালের ১৯ এপ্রিল মহানগর দায়রা জজ আদালতে একটি রিভিশন মামলা করে। ওই বছরের ২১ আগস্ট ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৬-এর বিচার ইমরুল কায়েশ রিভিশন আবেদন মঞ্জুর করে র‌্যাব মামলাটি আর তদন্ত করতে পারবে না বলে আদেশ দেন।
সর্বশেষ ২০১৬ সালের ৭ ডিসেম্বর ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট লস্কর সোহেল রানা মামলাটি পুনরায় তদন্তের জন্য পিবিআইকে নির্দেশ দেন।

 549 total views,  3 views today

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







© All rights reserved © 2014 barisalbani
Design By Rana