বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ১০:০৬ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
ঝালকাঠিতে যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম মঠবাড়িয়ায় সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী গ্রেফতার বাবুগঞ্জের সাইদুলের কাছে হারল ইসির শতকোটি টাকার সিস্টেম রিফাত হত্যা মামলায় দুই সাক্ষীকে টেন্ডার ঘোষণা প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক পেলেন পবিপ্রবির ৭ শিক্ষার্থী মুলাদিতে পাগলীর সন্তান প্রসব, খোঁজ মিলছে না বাবার! বরিশালে দুধ গরম করতে দেরী হওয়ায় স্ত্রীকে মেরেই ফেললো ছাত্রলীগ নেতা বরিশালে স্বামীর নির্যাতনেই মারা গেছে ছাত্রলীগ নেত্রী হেনা! গৌরনদী উপজেলা নির্বাহী অফিসারের হস্তক্ষেপে স্বামী ও সন্তান ফিরে পেলো লিনা বরিশালে কুড়িয়ে পাওয়া সেই শিশুটি ধর্ষিত : পুলিশ বরিশালে চরে আটকা লঞ্চ, খাবার সংকটে ১৭শ যাত্রী ববি শিক্ষার্থীদের ওপর হামলাকারীদের বহিষ্কারের দাবিতে মানববন্ধন বামনায় ছাত্রীকে আপত্তিকর ছবি পাঠানো সেই কলেজশিক্ষক বহিষ্কার লাখো মুসল্লির কলরবে ঐতিহাসিক চরমোনাই মাহফিল শুরু অচল হয়ে পড়েছে বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার ও জেলা প্রশাসকের দপ্তর বরিশালে একই দিনে দুটি মামলায় ‘স্বাস্থ্য সহকারী’র কারাদন্ড ব‌বিতে ক‌ক্ষে আটকে ছাত্র নির্যাতন শরীয়তপুরে স্কুলছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার ঈমান ও হিংসা এক সঙ্গে একই অন্তরে থাকতে পারে না- নজরুল ইসলাম তোফা মোংলায় শ্রমে নিযুক্ত শিশুদের স্কুলগামী করতে আলোচনা সভা
সন্তানের ভবিষ্যৎ চিন্তা করে স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া পরিহার করা উচিত: –ডা.সাঈদ এনাম

সন্তানের ভবিষ্যৎ চিন্তা করে স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া পরিহার করা উচিত: –ডা.সাঈদ এনাম

সন্তানের ভবিষ্যতের কথা ভেবে স্বামী ও স্ত্রীর ঝগড়াঝাটি, ডিভোর্স, সেপারেশন পরিহার করে চলা উচিত। কারণ সন্তানের জন্য মা-বাবা উভয়কেই প্রয়োজন।

আপনি যদি ভেবে থাকেন– আপনার টাকা-পয়সা আত্মীয়স্বজনের অভাব নেই। আপনি একাই চলতে পারবেন। হ্যাঁ, সেটি হয়তো সম্ভব হবে, তবে তা আপনার একার জন্য; কিন্তু তা কোনোভাবেই সম্ভব নয় আপনার সন্তানের জন্য। কারণ সন্তানের জন্য মা, বাবা উভয়ের বিকল্প কখনই টাকা-পয়সা হতে পারে না।

আর যদি কখনও ডিভোর্স বা সেপারেশন অবশ্যম্ভাবী হয়ে যায়, তবে অবশ্যই দুজনেরই সন্তানকে কোয়ালিটি টাইম দেয়ার শর্তে হতে হবে। আর পৃথিবীর কোনো ধর্ম বা আইন সেটির কোনো প্রতিবন্ধকতা তৈরি করবে না।

প্রিন্সেস ডায়ানা যখন মারা যান, তখন প্রিন্স হ্যারির বয়স ছিল মাত্র ১২ বছর। ডায়ানার শেষকৃত্য সারা বিশ্ববাসী সরাসরি দেখেছে। দেখেছে বালক প্রিন্স হ্যারির বারবার ফুপিয়ে কেঁদে ওঠা। যদিও রাজপরিবার থেকে তাকে বলা হয়েছিল না কাঁদতে।

হাসি ঠেকানো যায়; কিন্তু কান্না ঠেকানো যায় না। আর মাকে হারানোর কান্না আটকানো… প্রশ্নই আসে না! পৃথিবীর কোনো শক্তি মা হারানোর কান্না থামাতে পারে না।

মাকে হারানোর বেদনা মানুষ সারাজীবন বয়ে বেড়ায়। তাই তো এত বছর পর আজও প্রিন্স হ্যারি বলেন, ‘আমি ১২ বছর বয়সে মাকে হারিয়েছি। তার পর থেকে গত ২০ বছর আমার সব আবেগ-অনুভূতি স্তব্ধ হয়ে গেছে। মাকে হারানোর বেদনা আমার ব্যক্তিগত জীবনে ও কর্মক্ষেত্রে মারাত্মক প্রভাব ফেলছে’।

বর্তমান বিশ্বে প্রিন্স চার্লস ও প্রিন্স হ্যারী মেন্টাল হেলথ নিয়ে কাজ করা সবচেয়ে বড় হাইপ্রোফাইল ব্যক্তিত্ব।

লেখক: ডা. সাঈদ এনাম

সহকারী অধ্যাপক (সাইকিয়াট্রিস্ট), সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ

819 total views, 6 views today

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







© All rights reserved © 2014 barisalbani
Design By Rana