মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ০৭:০৫ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
বিশ্বকাপ বিজয়ী তৌহিদ হৃদয়কে গণসংবর্ধনা অস্তিত্ব সংকটে বাকেরগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী ’শ্রীমন্ত নদী’ আশি পেরিয়েও আনিসুজ্জামানের কর্মব্যস্ত জীবন বরিশালে টক অব দ্যা টাউন ‘নানক-জাহিদ বৈঠক’ বরিশাল রিপোর্টার্স ইউনিটির দুই দশক পূর্তি উৎসব কাল নানক-জাহিদ বৈঠকঃ বরিশাল আ’লীগে তোলপাড় ! বরিশালে হাওয়ায় দুলছে আমের সোনালী মুকুল: বাম্পার ফলনের আশা পিরোজপুরের শিক্ষিকাকে শ্লীলতাহানীর চেষ্টায় যুবকের কারাদন্ড বরগুনায় চীনফেরত শিক্ষার্থী জ্বর নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি পিরোজপুরের ভান্ডারিয়ায় ৩দিন ব্যাপী ওয়াজ মাহফিল মাদারীপুরে এসএসসি পরীক্ষার্থীর মাথা রক্তাক্ত করলেন শিক্ষক উজিরপুরে মাদ্রাসার দাতা সদস্যকে কুপিয়ে জখম নলছিটিতে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু উজিরপুরে বিএনপির অস্থায়ী কার্যালয়ে আগুন নলছিটিতে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু মৃত্যুর কাছে হেরে গেলেন সাংবাদিক আতিকের পিতা পিরোজপুরে ভূয়া পাসপোর্ট করতে এসে এক রোহিঙ্গা যুবক আটক ভাণ্ডারিয়ায় পাসপোর্ট করাতে এসে রোহিঙ্গা নাগরিক আটক আগৈলঝাড়ায় অপহৃতা স্কুল ছাত্রী উদ্ধার, অপহরনকারী গ্রেফতার গৌরনদীতে স্কুল বন্ধ রেখে বনভোজনে হিরিক
বিশ্ব ভালবাসা দিবস, বরিশালে ফুলের দোকানে উপচে পড়া ভীর

বিশ্ব ভালবাসা দিবস, বরিশালে ফুলের দোকানে উপচে পড়া ভীর

কাল ১৪ ফেব্রুয়ারী বিশ্ব ভালবাসা দিবস। দিবসটিকে ঘিরে বরিশালের ফুলের দোকান গুলোতে বেচা কেনায় ব্যস্ত সময় পাড় করছে ফুল ব্যাবসায়ীরা। ফুল উপহার দিয়ে প্রিয় জনকে ভালবাসা জানাতে নানা বয়সের নারী, পুরুষ, তরুন তরুনীরা ফুল কিনতে ভীড় জমাচ্ছে ফুলের দোকানে।

কাল ভালবাসা দিবস উপলক্ষে বরিশালেও ফুলের ব্যাপক চাহিদা সৃষ্টি হয়। বরিশালে বানিজ্যিক ভাবে ফুল চাষ না হওয়ায় ব্যাবসায়ীরা ক্রেতা সাধারনের ফুলের চাহিদা মেটাতে নির্ভর করে যশোর ও ঢাকার পাইকারী ফুলের মার্কেটের উপর। বরিশালে ১৫ টি ফুলের দোকান রয়েছে।
নগরীর জেমি ফুল কর্নার, দত্ত ফুর ঘর ও বনফুল ফুলের দোকানসহ বেশ কয়েকটি দোকান ঘুরে বেচাকেনায় অনেকটা ব্যাস্ত সময় পার করতে দেখা যায়। এসময় দত্ত ফুল ঘরের মালিক মেরী দত্ত জানায়, অন্য বছরের তুলনায় এবছর ১৪ ফেব্রæয়ারী ভালবাসা দিবসকে সামনে রেখে ১ দিন পূর্বেই বেচা কেনা শুরু হয়েছে। তবে এ বছর আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ফুলের ফলন ভাল হয়েছে। তারপরও ব্যবসায়ীদের পাইকারী বাজারে বেশি দাম দিয়ে ফুল কিনতে হচ্ছে। তাই অনেকটা বাদ্য হয়ে ফুল ক্রয়-বিক্রয়ের ক্ষেত্রে ক্রেতাদের অনেকটা বেশি দাম গুনতে হচ্ছে।

গতবছর ভালবাসা দিবসে প্রায় লক্ষটাকার ফুল বিক্রি করলেও ব্যবসায়িদের পক্ষথেকে অভিযোগ রয়েছে যে এই দিবসটিতে নগরীর বিভিন্ন অলিগলিতে বিক্ষিপ্তভাবে মৌসুমি ব্যবসায়িরা ফুল বিক্রি করায় প্রকৃত ফুল ব্যবসায়িদের বেচাকিনায় প্রভাব পরে। এবছর বেচাকিনার লক্ষমাত্রা অর্জন নিয়ে শঙ্কিত রয়েছে ফুল ব্যবসায়িরা। ব্যাবসায়িদের কাছ থেকে জানা যায় আকারে বড় ও রং গাড়ো থাকায় চায়না গোলাপের চাহিদা ক্রেতাদের কাছে অনেকটা বেশি। চায়না প্রতিটি গোলাপ ক্রয় হচ্ছে ৬০ টাকা আর বিক্রি হচ্ছে ৮০-১০০ টাকা, চায়না লিলিও একই দরে বিক্রি হচ্ছে।

মল্লিকা ক্রয় ৪০ টাকা বিক্রি হচ্ছে ৬০-৮০ টাকা দরে। রজনী গন্ধা ১২ টাকা ক্রয় বিক্রি হচ্ছে ২০-২৫ টাকা দরে গ্যালডিয়াস ৩০, ৪০, ৫০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। তবে অধিকাংশ ব্যবসায়ীরা মনে করেন বরিশালে প্রতিবছর ফুলের যে চাহিদা রয়েছে সে অনুযাই বরিশালে বাণিজ্যিক ভাবে এখনও ফুলের চাষাবাদ করা হচ্ছেনা।

162 total views, 3 views today

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন







© All rights reserved © 2014 barisalbani
Design By Rana